• শুক্রবার ২৪ মে ২০২৪ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ১০ ১৪৩১

  • || ১৫ জ্বিলকদ ১৪৪৫

বরিশাল প্রতিবেদন
ব্রেকিং:
কৃষিতে ফলন বাড়াতে অস্ট্রেলিয়ার প্রযুক্তি সহায়তা চান প্রধানমন্ত্রী বাজার মনিটরিংয়ে জোর দেওয়ার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর ‘বঙ্গবন্ধু শান্তি পদক’ দেবে বাংলাদেশ ইরানের প্রেসিডেন্টের মৃত্যুতে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শোক রাইসি-আমির আব্দুল্লাহিয়ান মারা গেছেন: ইরানি সংবাদমাধ্যম সকল ক্ষেত্রে সঠিক পরিমাপ নিশ্চিত করার আহ্বান রাষ্ট্রপতির ওজন ও পরিমাপ নিশ্চিতে কাজ করছে বিএসটিআই: প্রধানমন্ত্রী চাকরির পেছনে না ছুটে যুবকদের উদ্যোক্তা হওয়ার আহ্বান ‘সামান্য কেমিক্যালের পয়সা বাঁচাতে দেশের সর্বনাশ করবেন না’ কেউ হতাশ হবেন না: প্রধানমন্ত্রী ষড়যন্ত্র মোকাবেলা করে আওয়ামী লীগ দেশকে এগিয়ে নিয়ে যাবে শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস আজ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস আগামীকাল ন্যায়বিচার নিশ্চিত করতে বিচারকদের প্রতি আহ্বান রাষ্ট্রপতির আহতদের চিকিৎসায় আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলোর ভূমিকা চান প্রধানমন্ত্রী টেকসই উন্নয়নের জন্য কার্যকর জনসংখ্যা ব্যবস্থাপনা চান প্রধানমন্ত্রী বিএনপি ক্ষমতায় এসে সব কমিউনিটি ক্লিনিক বন্ধ করে দেয় চমক রেখে বিশ্বকাপের দল ঘোষণা করল বাংলাদেশ শেখ হাসিনার তিন গুরুত্বপূর্ণ সফর: প্রস্তুতি নিচ্ছে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় হজযাত্রীদের ভিসা অনুমোদনের সময় বাড়ানোর আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

তওবা করলে বরকত নাজিল হয়

বরিশাল প্রতিবেদন

প্রকাশিত: ২০ মার্চ ২০২৪  

আজ (১৯ মার্চ) ৮ রমজান দিবাগত রাতে ইশার পর নবম দিনের তারাবিহ নামাজে আমাদের দেশের মসজিদগুলোতে কোরআনের দ্বাদশতম পারা তিলাওয়াত করা হবে। দ্বাদশতম পারায় রয়েছে সুরা হুদের ৬ নং আয়াত থেকে শেষ পর্যন্ত এবং সুরা ইউসুফের শুরু থেকে ৫২ নং আয়াত পর্যন্ত।

পবিত্র কোরআনের এ অংশে আমাদের দৈনন্দিন জীবন সংশ্লিষ্ট গুরুত্বপূর্ণ যে দিক-নির্দেশনা রয়েছে:

১. কোনো অপরাধ হয়ে গেলে মুমিন বান্দার কর্তব্য দ্রুত আল্লাহর কাছে ক্ষমা প্রার্থনা করা ও সঠিক পথে ফিরে আসা। বান্দা তওবা করলে আল্লাহ ক্ষমা করেন এবং তাকে তার রিজিকসহ সব ক্ষেত্রে বরকত দান করেন। কোরআনে আল্লাহর নবি হুদের (আ.) কথা বর্ণিত হয়েছে যে, তিনি তার জাতিকে বলেছিলেন, হে আমার জাতি, তোমরা তোমাদের রবের কাছে ক্ষমা চাও, তার কাছে তাওবা কর, তাহলে তিনি তোমাদের ওপর মুষলধারে বৃষ্টি পাঠাবেন এবং তোমাদের শক্তির সাথে আরো শক্তি বৃদ্ধি করবেন। তোমরা অপরাধী হয়ে বিমুখ হয়ো না। (সুরা হুদ: ৫২)

২. আল্লাহর ফয়সালা ও রহমতের প্রতি ভরসা এবং বিপদ আপদে ধৈর্য ধারণ করা মুমিনের বৈশিষ্ট্য। মুমিন বান্দা যদি ধৈর্য ধারণ করে, আল্লাহর তার ওপর সন্তুষ্ট হন এবং তার শেষ পরিণাম উত্তম হয়। আল্লাহ তাআলা বলেন, ধৈর্য ধর, শুভ পরিণতি মুত্তাকীদের জন্যই নির্দিষ্ট। (সুরা হুদ: ৪৯)

৩. ক্রয়-বিক্রয়ের ক্ষেত্রে পন্য ও মূল্য যথাযথভাবে হস্তান্তর করা উচিত। ওজনে কম দেওয়া হারাম। সব যুগেই এ রকম অসততা হারাম ছিল। কোরআনে বর্ণিত হয়েছে, নবি শুআইব (আ.) তার জাতিকে এ রকম গর্হিত কাজ থেকে বিরত থাকতে বলেছিলেন। আল্লাহ তাআলা বলেন, আর মাদায়েনে আমি পাঠিয়েছিলাম তাদের ভাই শোয়াইবকে। সে বলল, ‘হে আমার জাতি, তোমরা আল্লাহর ইবাদত কর, তিনি ছাড়া তোমাদের কোন ইলাহ নেই এবং মাপ ও ওজনে কম করো না; আমি তো তোমাদের প্রাচুর্যশীল দেখছি আর আমি তোমাদের ওপর এক সর্বগ্রাসী দিনের আজাবের ভয় করি। হে আমার জাতি, মাপ ও ওজন পূর্ণ কর ইনসাফের সাথে এবং মানুষকে তাদের পণ্য কম দিও না; আর জমিনে ফাসাদ সৃষ্টি করে বেড়িও না। (সুরা হুদ: ৮৪, ৮৫)

৪. কেউ কোনো অন্যায় বা পাপ করলে তাকে ওই কাজ থেকে বিরত থাকার উপদেশ দিতে হবে, সামর্থ্য থাকলে বাধা দিতে হবে। তাকে সহায়তা করা থেকে বিরত থাকতে হবে। কোনো গুনাহের কাজে সমর্থন বা সহযোগিতা করলে নিজে গুনাহ না করেও শাস্তির ভাগীদার হতে হয়। আল্লাহ তাআলা বলেন, তোমরা জালিমদের প্রতি ঝুঁকে পড়ো না, তাহলে আগুন তোমাদেরকে স্পর্শ করবে, আর তখন আল্লাহ ছাড়া কেউ তোমাদের অভিভাবক থাকবে না, অত:পর তোমাদেরকে সাহায্যও করা হবে না। (সুরা হুদ: ১১৩)