• বুধবার ২৬ জুন ২০২৪ ||

  • আষাঢ় ১১ ১৪৩১

  • || ১৮ জ্বিলহজ্জ ১৪৪৫

বরিশাল প্রতিবেদন
ব্রেকিং:
ড. ইউনূস কর ফাঁকি দিয়েছেন, তা আদালতে প্রমাণিত: প্রধানমন্ত্রী ‘শেখ হাসিনা দেশ বিক্রি করে না’ অভিন্ন নদীর টেকসই ব্যবস্থাপনা নিয়ে আলোচনা হয়েছে: প্রধানমন্ত্রী দুই দেশের পারস্পরিক সহযোগিতার পথ নিয়ে আলোচনা করেছি সরকার শিক্ষা ব্যবস্থাকে বহুমাত্রিক করেছে: প্রধানমন্ত্রী অনেক হিরার টুকরা ছড়িয়ে আছে, কুড়িয়ে নিতে হবে বারবার ভস্ম থেকে জেগে উঠেছে আওয়ামী লীগ: শেখ হাসিনা টেকসই ভবিষ্যত নিশ্চিত করতে যৌথ দৃষ্টিভঙ্গিতে সম্মত: প্রধানমন্ত্রী গণতন্ত্র রক্ষায় আ. লীগ নেতাকর্মীদের সর্বদা প্রস্তুত থাকার নির্দেশ আওয়ামী লীগের প্লাটিনাম জয়ন্তীতে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা আওয়ামী লীগের প্লাটিনাম জয়ন্তী আজ ভারতের সঙ্গে বাংলাদেশের ১০ চুক্তি সই বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের ৭৫তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী আগামীকাল দিল্লির রাষ্ট্রপতি ভবনে শেখ হাসিনাকে রাজকীয় সংবর্ধনা হাসিনা-মোদী বৈঠক আজ সংলাপের মাধ্যমে বাণিজ্য প্রতিবন্ধকতা দূর করার আহ্বান বাংলাদেশ প্রতিবেশী দেশগুলোর বিনিয়োগকে অগ্রাধিকার দেয় বঙ্গবন্ধুর চার নীতি এবং বাংলাদেশের চার স্তম্ভ সুফিয়া কামালের সাহিত্যকর্ম নতুন প্রজন্মের প্রেরণার উৎস শুক্রবার ভারত যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী

মেয়ে বেশে চুরি, তৃতীয় লিঙ্গ সেজে করেন ছিনতাই!

বরিশাল প্রতিবেদন

প্রকাশিত: ২ সেপ্টেম্বর ২০২৩  

ছেলে হলেও মেয়ে সেজে ঘরে ঢুকেন। তারপর চুরি করে চলে যান। এতেই শেষ নয়। তৃতীয় লিঙ্গ সেজে চাঁদাবাজি ও ছিনতাই করতেন। বৃহস্পতিবার (৩১ আগস্ট) বিকেলে রাজধানীর শেরেবাংলা নগর থানা এলাকায় অভিযান চালিয়ে চক্রের ২ সদস্যকে গ্রেফতার করে পুলিশ। এ সময় তাদের কাছ থেকে স্বর্ণ ও নগদ টাকা উদ্ধার করা হয়।

গ্রেফতাররা হলেন হিজলা মনির ওরফে প্রকাশ মনি (২৭) ও রফিক প্রকাশ ওরফে অপরুপা প্রকাশ রূপা (২৮)। রাতে এ তথ্য নিশ্চিত করেন মিরপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি মোহাম্মদ মহসীন।

তিনি বলেন, মিরপুরের একটি চুরির তদন্তে বেরিয়ে আসে ধূর্ত এ চক্রের নাম। তারা নারী সেজে চুরি, তৃতীয় লিঙ্গ সেজে ছিনতাই ও চাঁদাবাজি করত। চক্রটি গত ২৭ আগস্ট মিরপুর মডেল থানার ৬০ ফিট এলাকার ট্যুর অ্যান্ড ট্রাভেলসে দুর্ধর্ষ এক চুরি হয়। চুরি করে আড়াই লাখ টাকা, দুইটি মোবাইল ফোন নিয়ে যায়। সিসিটিভি ফুটেজ পর্যালোচনা করে দেখা যায় চুরি করেছে এক নারী! পরে তদন্ত করে যখন গ্রেফতার করা হয় তখন দেখা যায় চোর নারী নয়, ছেলে! আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর চোখ ফাঁকি দিতেই মেয়ে সেজে চুরি করেন তারা। ঘরে মেয়ে সেজে চুরি করলেও রাস্তায় আবার তারা সাজেন তৃতীয় লিঙ্গ!

সাধারণত শুক্র ও শনিবার ছুটির দিন হলেও রফিক ও মনিরের কাছে এ দুই দিনই কাজের দিন! কারণ এ সময় অফিস বন্ধ থাকে। তারা যে অফিসেই যায় সেখান ঢুকতেই মাথায় ঘোমটা দিয়ে ঢুকে! আবার রুমে ঢুকলে মাথায় ছাতাও ধরে! কারণ এসব জায়গায় সিসি ক্যামেরা থাকে। সেই ক্যামেরায় মুখ না আনার জন্যই ঘোমটা ও ছাতার ব্যবহার! তারা যেখানেই চুরি করে সেখানেই সিসি ক্যামেরা ভেঙে দিয়ে আসে।

তার আসল নাম রফিক। কিন্তু বাইরে তিনি পরিচয় দেন রূপা নামে! একইভাবে আরেকজনের নাম মনির। কিন্তু তিনি বাইরে পরিচিত মনি নামেই। তারা দুইজনই ছেলে হলেও বাইরে তারা কখনও তৃতীয় লিঙ্গ হিসেবে, আর কখনও মেয়ে হিসেবেই পরিচয় দিতেন!

প্রায় ৪ বছর ধরে তারা চুরি করছিলেন। এ পর্যন্ত প্রায় শতাধিক চুরি করেছেন তারা। কিন্তু মেয়ে সেজে করার কারণে অধিকাংশ সময়ই তাদের শনাক্ত করা যায়নি। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বৃহস্পতিবার বিকেলে শেরে বাংলা নগর থানা এলাকা থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়। তাদের কাছ থেকে নগদ ১ লাখ ৬৮ হাজার টাকা, দুইটি মোবাইল ও ১ ভরি ৫ আনা স্বর্ণ উদ্ধার করা হয়। তাদের বিরুদ্ধে দুইটি করে মামলা রয়েছে।