• মঙ্গলবার ০৩ অক্টোবর ২০২৩ ||

  • আশ্বিন ১৭ ১৪৩০

  • || ১৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪৫

বরিশাল প্রতিবেদন
ব্রেকিং:
‘আর্থসামাজিক উন্নয়নে বাংলাদেশ ঈর্ষণীয় সাফল্য অর্জন করেছে’ শহর ও গ্রামের বৈষম্য দূর করবে সরকার: প্রধানমন্ত্রী বিশ্বকে সুন্দর করার পূর্বশর্ত শিশুদের সুন্দর করে গড়ে তোলা ‘শিশুর জন্য বিনিয়োগ করি, ভবিষ্যতের বিশ্ব গড়ি’ শিশুর সুশিক্ষা-সুস্থ বিনোদন নিশ্চিতে নিরলস কাজ করে যাচ্ছি সরকার প্রবীণ নাগরিকদের প্রতি সংবেদন ও শ্রদ্ধাশীল: প্রধানমন্ত্রী প্রধানমন্ত্রীকে স্বাগত জানিয়েছে যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগ ৪ অক্টোবর প্রধানমন্ত্রীকে সংবর্ধনা দেবে আওয়ামী লীগ ‘বিদেশে চিকিৎসার জন্য খালেদা জিয়াকে আদালতে যেতে হবে’ ভিসা নিষেধাজ্ঞার কোনও যৌক্তিকতা নেই: প্রধানমন্ত্রী আ.লীগ ক্ষমতায় না থাকলে বাংলাদেশ অন্ধকারে ফিরে যাবে: প্রধানমন্ত্রী বিশ্বকাপে ভালো খেলবে বাংলাদেশ, আশা প্রধানমন্ত্রীর কন্যাশিশুদের সুদক্ষ নাগরিক হিসেবে গড়ে তুলতে সরকার বদ্ধপরিকর অর্ধকোটি মানুষকে মাথা গোঁজার ঠাঁই দিয়েছেন শেখ হাসিনা বিশ্বের বিস্ময় বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা উন্নয়নে কোনো বিভাজন চলবে না: রাষ্ট্রপতি দেশের ভাবমূর্তি আরো জোরদার করতে কাজ করুন: প্রধানমন্ত্রী দেশের উন্নয়নে আওয়ামী লীগের বিকল্প নাই: প্রধানমন্ত্রী মহানবীর (সা.) আদর্শ অনুসরণের মধ্যেই সফলতা-শান্তি নিহিত পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী (সা.) আজ

মেয়ে বেশে চুরি, তৃতীয় লিঙ্গ সেজে করেন ছিনতাই!

বরিশাল প্রতিবেদন

প্রকাশিত: ২ সেপ্টেম্বর ২০২৩  

ছেলে হলেও মেয়ে সেজে ঘরে ঢুকেন। তারপর চুরি করে চলে যান। এতেই শেষ নয়। তৃতীয় লিঙ্গ সেজে চাঁদাবাজি ও ছিনতাই করতেন। বৃহস্পতিবার (৩১ আগস্ট) বিকেলে রাজধানীর শেরেবাংলা নগর থানা এলাকায় অভিযান চালিয়ে চক্রের ২ সদস্যকে গ্রেফতার করে পুলিশ। এ সময় তাদের কাছ থেকে স্বর্ণ ও নগদ টাকা উদ্ধার করা হয়।

গ্রেফতাররা হলেন হিজলা মনির ওরফে প্রকাশ মনি (২৭) ও রফিক প্রকাশ ওরফে অপরুপা প্রকাশ রূপা (২৮)। রাতে এ তথ্য নিশ্চিত করেন মিরপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি মোহাম্মদ মহসীন।

তিনি বলেন, মিরপুরের একটি চুরির তদন্তে বেরিয়ে আসে ধূর্ত এ চক্রের নাম। তারা নারী সেজে চুরি, তৃতীয় লিঙ্গ সেজে ছিনতাই ও চাঁদাবাজি করত। চক্রটি গত ২৭ আগস্ট মিরপুর মডেল থানার ৬০ ফিট এলাকার ট্যুর অ্যান্ড ট্রাভেলসে দুর্ধর্ষ এক চুরি হয়। চুরি করে আড়াই লাখ টাকা, দুইটি মোবাইল ফোন নিয়ে যায়। সিসিটিভি ফুটেজ পর্যালোচনা করে দেখা যায় চুরি করেছে এক নারী! পরে তদন্ত করে যখন গ্রেফতার করা হয় তখন দেখা যায় চোর নারী নয়, ছেলে! আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর চোখ ফাঁকি দিতেই মেয়ে সেজে চুরি করেন তারা। ঘরে মেয়ে সেজে চুরি করলেও রাস্তায় আবার তারা সাজেন তৃতীয় লিঙ্গ!

সাধারণত শুক্র ও শনিবার ছুটির দিন হলেও রফিক ও মনিরের কাছে এ দুই দিনই কাজের দিন! কারণ এ সময় অফিস বন্ধ থাকে। তারা যে অফিসেই যায় সেখান ঢুকতেই মাথায় ঘোমটা দিয়ে ঢুকে! আবার রুমে ঢুকলে মাথায় ছাতাও ধরে! কারণ এসব জায়গায় সিসি ক্যামেরা থাকে। সেই ক্যামেরায় মুখ না আনার জন্যই ঘোমটা ও ছাতার ব্যবহার! তারা যেখানেই চুরি করে সেখানেই সিসি ক্যামেরা ভেঙে দিয়ে আসে।

তার আসল নাম রফিক। কিন্তু বাইরে তিনি পরিচয় দেন রূপা নামে! একইভাবে আরেকজনের নাম মনির। কিন্তু তিনি বাইরে পরিচিত মনি নামেই। তারা দুইজনই ছেলে হলেও বাইরে তারা কখনও তৃতীয় লিঙ্গ হিসেবে, আর কখনও মেয়ে হিসেবেই পরিচয় দিতেন!

প্রায় ৪ বছর ধরে তারা চুরি করছিলেন। এ পর্যন্ত প্রায় শতাধিক চুরি করেছেন তারা। কিন্তু মেয়ে সেজে করার কারণে অধিকাংশ সময়ই তাদের শনাক্ত করা যায়নি। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বৃহস্পতিবার বিকেলে শেরে বাংলা নগর থানা এলাকা থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়। তাদের কাছ থেকে নগদ ১ লাখ ৬৮ হাজার টাকা, দুইটি মোবাইল ও ১ ভরি ৫ আনা স্বর্ণ উদ্ধার করা হয়। তাদের বিরুদ্ধে দুইটি করে মামলা রয়েছে।