• বুধবার ১৭ জুলাই ২০২৪ ||

  • শ্রাবণ ২ ১৪৩১

  • || ০৯ মুহররম ১৪৪৬

বরিশাল প্রতিবেদন
ব্রেকিং:
মুক্তিযোদ্ধাদের সর্বোচ্চ সম্মান দেখাতে হবে : প্রধানমন্ত্রী পবিত্র আশুরা মুসলিম উম্মার জন্য তাৎপর্যময় ও শোকের দিন আশুরার মর্মবাণী ধারণ করে সমাজে সত্য ও ন্যায় প্রতিষ্ঠার আহ্বান মুসলিম সম্প্রদায়ের উচিত গাজায় গণহত্যার বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধ হওয়া নিজেদের রাজাকার বলতে তাদের লজ্জাও করে না : প্রধানমন্ত্রী দুঃখ লাগছে, রোকেয়া হলের ছাত্রীরাও বলে তারা রাজাকার শেখ হাসিনার কারাবন্দি দিবস আজ ‘চীন কিছু দেয়নি, ভারতের সঙ্গে গোলামি চুক্তি’ বলা মানসিক অসুস্থতা দুর্নীতির বিরুদ্ধে অভিযান সরকারের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন করে না দেশের অর্থনীতি এখন যথেষ্ট শক্তিশালী : প্রধানমন্ত্রী আওয়ামী লীগ সরকার ব্যবসাবান্ধব সরকার ফুটবলের উন্নয়নে সহযোগিতা অব্যাহত রাখবে সরকার যথাযথ প্রশিক্ষণের মাধ্যমে বিশ্বমানের খেলোয়াড় তৈরি করুন চীন সফর নিয়ে সংবাদ সম্মেলনে আসছেন প্রধানমন্ত্রী টেকসই উন্নয়নে পরিকল্পিত ও দক্ষ জনসংখ্যার গুরুত্ব অপরিসীম বাংলাদেশে আরো বিনিয়োগ করতে চায় চীন: শি জিনপিং চীন সফর শেষে দেশে ফিরেছেন প্রধানমন্ত্রী চীন সফর সংক্ষিপ্ত করে আজ দেশে ফিরছেন প্রধানমন্ত্রী ঢাকা-বেইজিং ৭ ঘোষণাপত্র, ২১ চুক্তি সই চীনের প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকে শেখ হাসিনা

বরিশাল বিমানবন্দরে বিএনপির দু’গ্রুপের সংঘর্ষে রণক্ষেত্র ॥ আহত-১০

বরিশাল প্রতিবেদন

প্রকাশিত: ১১ ডিসেম্বর ২০১৮  

বাবুগঞ্জ প্রতিনিধি ॥  বরিশাল বিমানবন্দরে ধানের শীষের প্রার্থী অ্যাডভোকেট জয়নুল আবেদীনকে অভ্যর্থনা জানাতে এসে ফুল দেওয়ার ঘটনাকে কেন্দ্র করে বিএনপির দু’গ্রুপের ধাওয়া-পাল্টাধাওয়া ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এতে উভয় পক্ষের কমপক্ষে ১০ নেতাকর্মী আহত হয়েছেন। এসময় লাঞ্ছিত হয়েছেন উপজেলা বিএনপির সভাপতি ইসরাত হোসেন কচি তালুকদার। প্রায় আধা ঘন্টাব্যাপী ওই সংঘর্ষ চলাকালে বরিশাল বিমানবন্দর এলাকা রণক্ষেত্রে পরিনত হয়। এসময় বিমানবন্দরে গোটা এলাকায় আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়লে পরে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করে পুলিশ।

প্রত্যক্ষদর্শী, পুলিশ ও সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, বরিশাল-৩ (বাবুগঞ্জ-মুলাদী) আসনে ধানের শীর্ষ মনোনীত প্রার্থী সুপ্রিমকোর্ট বার এসোসিয়েশনের সভাপতি অ্যাডভোকেট জয়নুল আবেদীন সোমবার বিকেলে বরিশাল বিমানবন্দরে অবতরণ করলে সেলিমা রহমান গ্রুপের নেতাকর্মীসহ উভয় গ্রুপের নেতাকর্মীরা তাকে অভ্যর্থনা জানাতে বিমানবন্দরে যান।

 

এসময় জয়নুল অনুসারীরা প্রথমে তাকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানানোর পরে বাবুগঞ্জ উপজেলা বিএনপি সভাপতি ইসরাত হোসেন কচি তালুকদারের নেতৃত্বে সেলিমা গ্রুপের নেতাকর্মীরা তাকে ফুল দিয়ে অভ্যর্থনা জানাতে গেলে ঘটে বিপত্তি। এসময় জয়নুলপন্থী অবসরপ্রাপ্ত সেনাসদস্য খোকন ওরফে আর্মি খোকন তাতে বাঁধা দিয়ে বিএনপি সভাপতি কচি তালুকদারকে ধাক্কা দেন।

 

এ ঘটনায় বিক্ষুব্ধ তার অনুসারী নেতাকর্মীরা আর্মি খোকনকে মারপিট করলে সংঘর্ষ শুরু হয়। এতে উভয় পক্ষের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টাধাওয়া ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। দফায় দফায় প্রায় আধাঘন্টা ধরে চলা ওই সংঘর্ষে বরিশাল বিমানবন্দর এলাকা রণক্ষেত্রে পরিনত হয়। এসময় ওই ধাওয়া-পাল্টাধাওয়া ও সংঘর্ষে আর্মি খোকন ছাড়াও বিএনপি নেতা কাজী বেলায়েত হোসেন, ছাত্রদল নেতা এইচ.এম লিমন, মামুন হোসেন, জুবায়ের, সৌরভসহ উভয় গ্রুপের কমপক্ষে ১০ নেতাকর্মী আহত হন।

 

পরে তাদের উভয় গ্রুপকে ধাওয়া করে পুলিশ। বিমানবন্দর থানার ওসি এইচ.এম আব্দুর রহমান মুকুল বলেন, বড় ধরনের রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষ শুরু হওয়ার আগেই উভয় গ্রুপকে ছত্রভঙ্গ করে পরিস্থিতি সম্পূর্ণ নিয়ন্ত্রণে নেয় বিমানবন্দর থানা পুলিশ।

 

ঘটনা সম্পর্কে জানতে বাবুগঞ্জ উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক ওয়াহিদুল ইসলাম প্রিন্সের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করলে তিনি বলেন, বিএনপি প্রার্থীকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানানোর সময় উপজেলা বিএনপি সভাপতি ইসরাত হোসেন কচি তালুকদারের সাথে তারা যে আচরণ করেছে তা একেবারেই অনাকাক্সিক্ষত এবং দুঃখজনক। এদিকে এ ব্যাপারে উপজেলা বিএনপি সভাপতি ইসরাত হোসেন কচি তালুকদারের মোবাইলে ফোন করা হলে তিনি দলীয় মিটিংয়ে বিজি আছেন এবং পরে কলব্যাক করবেন বলে লাইন কেটে দেন।