• বৃহস্পতিবার   ১৮ আগস্ট ২০২২ ||

  • ভাদ্র ৩ ১৪২৯

  • || ১৯ মুহররম ১৪৪৪

বরিশাল প্রতিবেদন
ব্রেকিং:
প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করলেন জাতিসংঘ মানবাধিকার প্রধান বঙ্গবন্ধুকে হত্যার পর আ. লীগের নেতারা কী করেছিলেন: প্রধানমন্ত্রী সুশীল বাবু মইনুল খুনিদের নিয়ে দল গঠন করে: প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধু হত্যায় জড়িতরা আজ মানবাধিকারের কথা বলে: প্রধানমন্ত্রী ভারত পারলে আমরাও রাশিয়া থেকে তেল কিনতে পারবো: প্রধানমন্ত্রী ‘ষড়যন্ত্র প্রতিহত করে বঙ্গবন্ধু হত্যার বিচারের রায় কার্যকর করেছি’ খবরদার আন্দোলনকারীদের ডিস্টার্ব করবেন না: প্রধানমন্ত্রী জাতির পিতার মৃত্যু নেই শোক দিবসে বঙ্গভবনে বিশেষ দোয়ার আয়োজন রাষ্ট্রপতির টুঙ্গিপাড়ায় বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা জ্বালানি তেলের দাম বাড়ানোর বিষয়ে পরিষ্কার ব্যাখ্যার নির্দেশ বঙ্গবন্ধু মেমোরিয়াল ট্রাস্টের সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত মানবাধিকার কমিশনকে যথাযথভাবে দায়িত্ব পালনের নির্দেশ রাষ্ট্রপতির ৪০০তম ওয়ানডে খেলার অপেক্ষায় বাংলাদেশ জ্বালানি নিরাপত্তা: বঙ্গবন্ধু ও শেখ হাসিনার অবদান রাজনৈতিক সিদ্ধান্তে বঙ্গমাতার মনোভাব প্রতিফলিত হয়েছে পীরগঞ্জে তাণ্ডবের মামলায় ৫১ আসামির আত্মসমর্পণ বঙ্গমাতার সমাধিতে প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা স্বাধীনতার সংগ্রামে বঙ্গবন্ধুর সারথি ছিলেন আমার মা: প্রধানমন্ত্রী বঙ্গমাতা কঠিন দিনগুলোতে ছিলেন দৃঢ় ও অবিচল: রাষ্ট্রপতি

দেশের ইতিহাসে সর্বোচ্চ দাম বাড়ল রডের

বরিশাল প্রতিবেদন

প্রকাশিত: ১৫ নভেম্বর ২০২১  

অস্বাভাবিক হারে বৃদ্ধি পাচ্ছে রডের (মাইল্ড স্টিল) দাম। মাত্র দুই সপ্তাহের ব্যবধানে রডের দাম বেড়েছে ৭ হাজার টাকা। গত এক বছরে রডের দাম ২৫ হাজার টাকা পর্যন্ত বৃদ্ধি পেয়েছে। এই প্রথম দেশের বাজারে রডের দাম এতো বাড়ল।

রডের এমন দাম বাড়ার কারণ হিসেবে, দেশীয় এবং আন্তর্জাতিক বাজারের রড তৈরির কাঁচামাল স্ক্র্যাপ এবং বিলেটের দাম বৃদ্ধি পাওয়াকে দায়ী করছে সংশ্লিষ্ট ব্যবসায়ীরা।

এ ব্যাপারে কেএসআরএম গ্রুপের জেনারেল ম্যানেজার (সেলস) মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন বলেন, রডের দাম বৃদ্ধির প্রধান কারণ আন্তর্জাতিক বাজারে স্ক্র্যাপ ও স্ক্র্যাপ জাহাজের বুকিং দর বৃদ্ধি। ২০২০ সালে জুলাই থেকে সেপ্টেম্বর পর্যন্ত আর্ন্তজাতিক বাজারে প্রতি টন স্ক্র্যাপের দাম ছিল ২৬৫-২৭০ ডলার। কিন্তু বর্তমানে স্ক্র্যাপের বুকিং দর ৬০০ ডলার ছাড়িয়ে গেছে।

যদিও ব্যবসায়ীরা বলছেন, স্ক্র্যাপের দাম দ্বিগুণ বৃদ্ধি পেলেও উৎপাদনের সঙ্গে সমন্বয় করতে রডের দাম সেই তুলনায় বাড়ানো হয়নি। বর্তমানে বাজারে তিন ধরনের রড পাওয়া যাচ্ছে- অত্যাধুনিক প্রযুক্তি বা অটো কারখানাগুলোতে তৈরি ৭৫-গ্রেড (৫০০ টিএমটি), সেমি-অটো কারখানাগুলোতে তৈরি ৬০-গ্রেড (৫০০ ওয়াট) এবং সাধারণ বা ৪০-গ্রেডের রড।

এর মধ্যে প্রতি টন ৭৫-গ্রেডের রড বিক্রি হচ্ছে ৭৪ হাজার থেকে ৭৮ হাজার টাকায়। মাত্র দুই সপ্তাহ পূর্বেই এই গ্রেডের প্রতি টন রডের দাম ছিল ৬৭ হাজার থেকে ৭৩ হাজার টাকা।

এ ছাড়া রডের পাশাপাশি অস্বাভাবিকভাবে বেড়েছে ইস্পাত তৈরির কাঁচামাল বিলেট, প্লেট ও স্ক্র্যাপের দামও। বর্তমানে বাজারে প্রতি টন স্ক্র্যাপ ৫৫ হাজার টাকা, প্লেট ৬০ হাজার টাকা এবং বিলেট ৬৬ হাজার টাকায় বিক্রি হচ্ছে। দুই সপ্তাহে আগে স্ক্র্যাপ ৫০ হাজার টাকা, প্লেট ৫৬ হাজার টাকা এবং বিলেট ৬০-৬১ হাজার টাকায় বিক্রি হয়েছে।