• রোববার   ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০ ||

  • আশ্বিন ১২ ১৪২৭

  • || ০৯ সফর ১৪৪২

বরিশাল প্রতিবেদন
ব্রেকিং:
এমসি কলেজে ধর্ষণের ঘটনায় কাউকে ছাড় নয়: কাদের করোনায় আরও ২৮ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ১৫৪০ মেহেরপুরে ‘আল্লাহর দল’র সক্রিয় সদস্য আটক করোনায় ২৪ ঘণ্টায় ৩৭ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ১৬৬৬ করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ২৮, শনাক্ত ১৫৫৭ মসজিদে বিস্ফোরণে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৩৪ ধর্ষণ মামলায় ভিপি নুর গ্রেফতার আইসিটি মামলায় আলাউদ্দিন জিহাদী এক দিনের রিমান্ডে করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৪০, শনাক্ত ১৭০৫ গাড়িচালক মালেক ১৪ দিনের রিমান্ডে করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ২৬, শনাক্ত ১৫৪৪ গভীর সমুদ্র থেকে ৫ লাখ পিস ইয়াবা উদ্ধার, আটক ৭ ব্যাংকটা যেন ভালোভাবে চলে সেদিকে দৃষ্টি দিবেন: প্রধানমন্ত্রী নারায়ণগঞ্জের মসজিদে বিস্ফোরণে মৃত্যু বেড়ে ৩৩ আহমদ শফী কওমি শিক্ষার আধুনিকায়নে ভূমিকা রেখেছেন: প্রধানমন্ত্রী না.গঞ্জে মসজিদে বিস্ফোরণে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৩২ করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৩৬, শনাক্ত ১৫৯৩ পেঁয়াজ আমদানিতে ৫ শতাংশ শুল্ক কমানোর চিন্তা: অর্থমন্ত্রী সরকার ওজোনস্তর রক্ষায় কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে: পরিবেশ মন্ত্রী এক মাসের মধ্যে পেঁয়াজের দাম স্বাভাবিক হবে: বাণিজ্যমন্ত্রী
১১০

বিএনপির প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে দুই গ্রুপের মারামারি

বরিশাল প্রতিবেদন

প্রকাশিত: ১ সেপ্টেম্বর ২০২০  

দিনাজপুরের খানসামা উপজেলায় বিএনপির ৪২তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালন করতে গিয়ে দুই গ্রুপের মধ্যে মারামারির ঘটনা ঘটেছে। পরে ঘটনাস্থলে পুলিশ এসে দুই গ্রুপকে ছত্রভঙ্গ করে দিয়েছে। মঙ্গলবার (০১ সেপ্টেম্বর) সকাল ১১টায় উপজেলার পাকেরহাটের বাইপাসে চৌধুরী রাইস মিল চত্বরে এ ঘটনা ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, পূর্ব নির্ধারিত সময়ে বিএনপির ৪২তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালন করার জন্য আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিলের আয়োজন করে বিএনপির আহবায়ক কমিটি। কিন্তু বিএনপির অপর একটি পক্ষ আলোচনা সভার ঘটনাস্থলে এসে তাদের ছত্রভঙ্গ করার চেষ্টা চালায়। একটি পক্ষ প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর ব্যানার সরিয়ে দেয়ার জন্য চেষ্টা চালায়। এতে আহবায়ক কমিটির সদস্যরা বাধা দিতে গেলে হাতাহাতির এক পর্যায়ে মারামারি শুরু হয়। তবে এ ঘটনায় কেউ হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি। মারামারির এক পর্যায়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ এসে দুই পক্ষের নেতাকর্মীদের ছত্রভঙ্গ করে ধাওয়া করে।
   
উপজেলা বিএনপির আহবায়ক কমিটি নিয়ে পূর্ব থেকেই কমিটির একটি পক্ষ আহবায়ক কমিটিকে অবাঞ্ছিত ঘোষণা করে আসছিলেন। উপজেলা বিএনপির আহবায়ক কমিটির যুগ্ম আহবায়ক রবিউল আলম তুহিন জানান, আহ্বায়ক কমিটির ১ নম্বর যুগ্ম আহবায়ক মিজানুর রহমান চৌধুরীকে আমরা কোনভাবেই মানি না। তিনি দলের নতুন সদস্য হয়েও টাকার বিনিময়ে দলের ১ নম্বর যুগ্ম আহবায়ক পদ বাগিয়ে নেন। এতে দীর্ঘদিন ধরে দলের জন্য নির্যাতিত নেতাকর্মীরা আহবায়ক কমিটির প্রতি অনাস্থা জ্ঞাপন করে আসছিলেন।

এদিকে আহবায়ক কমিটির ১ নম্বর যুগ্ম আহবায়ক মো. মিজানুর রহমান চৌধুরী বলেন, টাকা দিয়ে কখনোই রাজনীতি হয় না। মানুষের ভালোবাসা এবং দল আমাকে আহবায়ক কমিটিতে পদ দিয়েছেন বলেই আমি ১ নম্বর যুগ্ম আহবায়ক পদ পেয়েছি।

আহবায়ক কমিটির আহবায়ক মো. আমিনুল হক চৌধুরী বলেন,‘আমরা শান্তিপূর্ণভাবে দলের ৪২তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালন করার জন্য নেতাকর্মীদের আগে থেকেই জানিয়ে আসছিলাম। কিন্তু হঠাৎ করে আমাদের আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিলে একটি পক্ষ এসে অতর্কিতভাবে হামলা চালায়। পরে আলোচনা সভার নেতাকর্মীরা তাদের বিরুদ্ধে অবস্থান নিলে তারা পালিয়ে যায়।

তিনি আরও বলেন, দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গের জন্য যারা দায়ী তাদের বিরুদ্ধে দলের গঠনতন্ত্র অনুযায়ী জেলা ও কেন্দ্রে বিষয়টি লিখিত আকারে জানাব। দলীয়ভাবে শৃঙ্খলাভঙ্গকারীদের বিরুদ্ধে আমরা ব্যবস্থা গ্রহণ করব।

এ বিষয়ে খানসামা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) শেখ কামাল হোসেন বলেন, ঘরোয়া-ভাবে বিএনপির প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর আলোচনা সভার অনুষ্ঠানে যে মারামারি বা হাতাহাতির ঘটনা ঘটেছে তা আমাদের নজরে আসার সাথে সাথেই দুটি পক্ষকেই ছত্রভঙ্গ করে দেই। এ বিষয়ে যদি কেউ আমাদের কাছে অভিযোগ বা মামলা করতে আসে তাহলে আমরা অবশ্যই মামলা গ্রহণ করে কঠোর আইনানুগ ব্যবস্থা করা করব। খানসামা উপজেলায় আইনশৃঙ্খলা বিনষ্ট করার চেষ্টা করা হলে আমরা কোনভাবেই ছাড় দিব না।

 

রাজনীতি বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর