রোববার   ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০   ফাল্গুন ১০ ১৪২৬   ২৮ জমাদিউস সানি ১৪৪১

বরিশাল প্রতিবেদন
ব্রেকিং:
শীর্ষ সন্ত্রাসী জিসানের সহযোগী র‌্যাবের হাতে গ্রেফতার দৃশ্যমান পদ্মা সেতুর পৌনে চার কিলোমিটার সারা দেশে শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত ইংরেজি উচ্চারণে বাংলা বলার সমালোচনা প্রধানমন্ত্রীর উন্নত দেশ গড়তে বেসরকারি সহযোগিতা প্রয়োজন: পররাষ্ট্রমন্ত্রী মুজিববর্ষে বিএনপিকেও আমন্ত্রণ জানানো হবে: কাদের ভণ্ডপীরসহ ৯ জনের কারাদণ্ড প্রধানমন্ত্রী সব সময় শিক্ষাকে গুরুত্ব দেন: পরিকল্পনামন্ত্রী মুজিব বর্ষে নতুন শিল্প কারখানা স্থাপন করা হবে: শিল্প প্রতিমন্ত্রী আসন্ন সেচ মৌসুমে লোডশেডিংয়ের শঙ্কা নেই : বিদ্যুৎ বিভাগ একুশে পদক হাতে তুলে দিলেন প্রধানমন্ত্রী শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস শুক্রবার একুশে পদক মেধা ও মনন চর্চার ক্ষেত্র সম্প্রসারিত করবে : রাষ্ট্রপতি আজ একুশে পদক প্রদান করবেন প্রধানমন্ত্রী এনামুল বাছিরের পদোন্নতির আবেদন হাইকোর্টে খারিজ জাপানের সঙ্গে জয়েন্ট ওয়ার্কিং গ্রুপ হবে : বাণিজ্যমন্ত্রী সমৃদ্ধ দেশ গড়তে সুস্থ যুব সমাজের বিকল্প নেই : প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ ডাকঘর সঞ্চয়ের সুদহার পুনর্বিবেচনা করা হবে : অর্থমন্ত্রী মুঠোফোন প্রতারক জিনের বাদশা গ্রেফতার করোনাভাইরাস নিয়ে গুজবে কান দিবেন না : স্বাস্থ্যমন্ত্রী
৫৬

বাকেরগঞ্জে অপহরণ মামলায় ১৪ বছরের কারাদণ্ড

বরিশাল প্রতিবেদন

প্রকাশিত: ১০ অক্টোবর ২০১৯  

বরিশালের বাকেরগঞ্জ উপজেলায় অষ্টম শ্রেণির এক স্কুলছাত্রীকে অপহরণের মামলায় জুয়েল উদ্দিন নামে এক ব্যক্তিকে ১৪ বছরের কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। পাশাপাশি ১০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও ছয় মাসের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

বুধবার (৯ অক্টোবর) বরিশালের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক মো. আবু শামীম আজাদ এ রায় ঘোষণা করেন। দণ্ডপ্রাপ্ত জুয়েল বাকেরগঞ্জ উপজেলার দুধল এলাকার মৃত মোতালেব উদ্দিনের ছেলে।

মামলা সূত্রে জানা যায়, মামলার বাদীর অষ্টম শ্রেণিতে পড়ুয়া মেয়েকে স্কুলে যাওয়া আসার পথে উত্ত্যক্ত করতেন জুয়েল।  তার দেওয়া কুপ্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় ২০০৯ সালের ২২ ডিসেম্বর ওই স্কুলছাত্রীকে অপহরণ করেন জুয়েল। এ ঘটনায় ২০০৯ সালের ২৩ ডিসেম্বর জুয়েলের বিরুদ্ধে অপহরণের একটি মামলা দায়ের করেন স্কুলছাত্রীর বাবা। অপহরণের পাঁচ দিন পর ঢাকা থেকে তাকে উদ্ধার করে পুলিশ।

এ ঘটনায় বাকেরগঞ্জ থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) ইউনুস ২০১০ সালের ২৮ জানুয়ারি আদালতে চার্জশিট দাখিল করেন। নয় জনের সাক্ষগ্রহণ শেষে আদলত এ রায় দেন।

এই বিভাগের আরো খবর