শুক্রবার   ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯   আশ্বিন ৪ ১৪২৬   ২০ মুহররম ১৪৪১

বরিশাল প্রতিবেদন
ব্রেকিং:
ছাত্রলীগের পর যুবলীগকে ধরেছি : প্রধানমন্ত্রী ছাত্রলীগকে সংযমের সঙ্গে চলার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর প্রধানমন্ত্রীর সাথে যুক্তরাজ্য প্রতিনিধি দলের সাক্ষাত অবৈধ জুয়ার আড্ডা বা ক্যাসিনো চলতে দেওয়া হবে না: ডিএমপি কমিশনার পটুয়াখালীতে ধর্ষণ মামলার বাদীকে পেটানো প্রধান আসামিসহ গ্রেপ্তার-৪ শাহজালালে বিমানের জরুরি অবতরণ শুক্রবার নিউইয়র্ক যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী ফকিরাপুলের ক্যাসিনো থেকে আটক ১৪২ জনের জেল রাজধানীর তিনটি ক্যাসিনোতে র‌্যাবের অভিযান জিম্বাবুয়েকে হারিয়ে ত্রিদেশীয় সিরিজের ফাইনালে বাংলাদেশ রিয়াদের ফিফটিতে টাইগাররা ১৭৬ রানের লক্ষ্য দিলো জিম্বাবুয়েকে টস হেরে ব্যাটিং এ বাংলাদেশ রিফাত হত্যা : পলাতক ৯ জনের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা রোহিঙ্গা সংকট : ত্রিপক্ষীয় বৈঠকে বসছে চীন-মিয়ানমার-বাংলাদেশ আমাদের কাজই হচ্ছে জনগণকে সেবা দেয়া : প্রধানমন্ত্রী রোহিঙ্গা ইস্যুতে চীন বাংলাদেশের পক্ষে: মোমেন আজ গাজীপুর যাবেন প্রধানমন্ত্রী পরিবেশ দূষণ: ৪ প্রতিষ্ঠানকে কোটি টাকা জরিমানা স্বর্ণজয়ী রোমান সানার মায়ের চিকিৎসার দায়িত্ব নিলেন প্রধানমন্ত্রী আরো দু’টি বোয়িং বিমান কেনার ইঙ্গিত দিলেন প্রধানমন্ত্রী
৮২৯

বদলে যাচ্ছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়

প্রকাশিত: ২২ জুন ২০১৯  

শিক্ষার মান বাড়াতে শিক্ষক নিয়োগ, কলেজ পরিচালনা কমিটি গঠন ও মেয়াদ সংশোধনসহ বেশ কয়েকটি সিদ্ধান্ত নিয়েছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়। শনিবার বিশ্ববিদ্যালয়টির একাডেমিক কাউন্সিল সভায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

এ বিষয়ে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক হারুন অর রশিদ বলেন, আগামী শিক্ষাবর্ষ থেকে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীন কলেজগুলোতে শিক্ষক নিয়োগ দেয়া হবে লিখিত ও মৌখিক পরীক্ষার ফলাফলের ভিত্তিতে। শিক্ষার মান বাড়াতে শিক্ষক নিয়োগে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

হারুন অর রশিদ বলেন, ভালো শিক্ষকদেরকে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে নিয়োগ দিতে চাই। এজন্য শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়াটিতে লিখিত ও মৌখিক পরীক্ষা নেয়ার বিষয়টি যোগ করা হয়েছে। এছাড়াও শিক্ষার পরিবেশ নিশ্চিত করার লক্ষ্যে কলেজের পরিচালনা কমিটি গঠন ও মেয়াদ সংশোধন করা হয়েছে।

নতুন নিয়মে পরিচালনা কমিটিতে একজন নারী সদস্য নিয়োগের বাধ্যবাধকতা আরোপ করা হয়েছে বলে জানান তিনি। এছাড়া কমিটির মেয়াদ কমিয়ে চার বছরের জায়গায় দুই বছর করা হয়েছে বলেও জানান উপাচার্য হারুন।

এদিকে, জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীন কলেজগুলোতে স্নাতক (সম্মান) প্রথম বর্ষে ভর্তি হতে এসএসসি, এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় ন্যূনতম জিপিএ-২ পেতে হত। নতুন সিদ্ধান্তে ন্যূনতম এ যোগ্যতাও বাড়ানো হয়েছে। 

মানবিক শাখায় ভর্তির জন্য এসএসসি, এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় ন্যূনতম জিপিএ-২.৫, বিজ্ঞান ও ব্যবসা শিক্ষায় ভর্তির জন্য এসএসসিতে জিপিএ-৩ এবং এইচএসসিতে নূন্যতম জিপিএ-২.৫ নির্ধারণ করা হয়েছে।

ভর্তির ন্যূনতম যোগ্যতা বাড়লেও কলেজগুলোতে স্নাতক প্রথম বর্ষে ভর্তির জন্য এবারো কোনো পরীক্ষার প্রয়োজন পড়বে না। ফলাফল ভিত্তিক পুরনো নিয়মেই হওয়া যাবে ভর্তি। 

এ ব্যাপারে উপাচার্য হারুন অর রশিদ বলেন, ফলাফলের ভিত্তিতে ভর্তির নিয়মটি এখনি বদল করার সময় আসেনি। সময় এলে অবশ্যই আমরা ভর্তি পরীক্ষার মাধ্যমে শিক্ষার্থী ভর্তি শুরু করব।

এই বিভাগের আরো খবর