সোমবার   ১৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০   ফাল্গুন ৫ ১৪২৬   ২২ জমাদিউস সানি ১৪৪১

বরিশাল প্রতিবেদন
ব্রেকিং:
দেশে রাজনৈতিক স্থিতিশীলতা বিরাজ করছে : নাসিম ব্যাংকের জঙ্গি অর্থায়ন নজরদারিতে রয়েছে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ৪০০ মেট্রিক টন মধু রফতানির অর্ডার পেয়েছে বাংলাদেশ : কৃষিমন্ত্রী নয় বছরে সাড়ে ৯৭ হাজার কর্মকর্তা নিয়োগ : জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী দেশে মোবাইল টাওয়ার রেডিয়েশনের মাত্রা ক্ষতিকর নয় : বিটিআরসি সন্ধ্যায় বঙ্গভবনে যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী ২০ বছর পর আজ ঢাকায় আসছেন নেপালের পররাষ্ট্রমন্ত্রী খালেদার প্যারোলে মুক্তির কোনো আবেদন পাইনি: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী উহান ফেরত শিক্ষার্থীরা নজরদারিতেই থাকবেন : আইইডিসিআর রোহিঙ্গা ইস্যুতে ইন্দোনেশিয়ার সহায়তা চাইলেন ড. মোমেন ইউএনও’দের মাধ্যমে রাজাকারের তালিকা করা হবে : মোজাম্মেল হক মানবপাচারে অভিযুক্ত এমপির বিষয়ে দুদককে তদন্তের আহ্বান কাদেরের হত্যা মামলায় ৯ জনের যাবজ্জীবন বিশ্বকাপজয়ী ৬ ক্রিকেটারকে নিয়ে বিসিবি একাদশ ঘোষণা মশা মারার পর্যাপ্ত ঔষধ মজুত আছে : স্থানীয় সরকারমন্ত্রী রহমত আলীর মৃত্যুতে রাষ্ট্রপতি-প্রধানমন্ত্রীর শোক সাবেক মন্ত্রী অ্যাডভোকেট রহমত আলী আর নেই নিঃস্বার্থভাবে জনগণের কাজ করুন, নেতাকর্মীদের শেখ হাসিনা কে ভোট দিল কে দিল না তা বিবেচনা করে না আ. লীগ : প্রধানমন্ত্রী আ.লীগ উন্নয়নে বিশ্বাসী: প্রধানমন্ত্রী
২৮৮

পুলিশ বাবার পিস্তলে আত্মহত্যার আগে যা লিখে গেছে সাদিক

বরিশাল প্রতিবেদন

প্রকাশিত: ২ অক্টোবর ২০১৯  

রাজধানীর আজিমপুরে সরকারি কোয়ার্টারে পুলিশ বাবার পিস্তলে আত্মহত্যার আগে সুইসাইড নোট লিখেছিল ছেলে সাদিক। সেখানে তার লাশের পাশেই মিলেছে বাবার লাইসেন্স করা পিস্তল ও একটি চিরকুট বা সুইসাইড নোট।

যেখানে লেখা ছিল, ‘মা তোমার যোগ্য সন্তান হতে পারিনি, বাবা তোমার যোগ্য সন্তান হতে পারিনি। ভালো শিক্ষার্থী হতে পারিনি। আমার মৃত্যুর জন্য আমিই দায়ি।’

প্রাথমিক তদন্ত শেষে ডিএমপির লালবাগ বিভাগের উপ-কমিশনার (ডিসি) মোনতাসিরুল ইসলাম বলেন, ঘটনাটি আত্মহত্যা বলেই মনে হচ্ছে প্রাথমিক তদন্ত শেষে। তবে তার (সাদিক) মৃত্যুর পেছনে অন্য কোন কারণ আছে কি না তার তদন্ত চলছে।

এর আগে সোমবার আজিমপুরে সরকারি কোয়ার্টারের ৬৭ নম্বর ভবন থেকে ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) উপ-কমিশনার সাজ্জাদুর রহমানের ছেলে সাদিক বিন সাজ্জাতের (১৮) লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

এদিকে প্রাথমিক তদন্ত শেষে পুলিশের একটি সূত্র জানিয়েছে, সাদিক চিরকুটে যে তথ্য লিখে গেছে তা থেকে মনে হয়েছে, সে লেখাপড়ায় ভালো করতে পারছিল না এ কারণে আত্মহত্যা করেছে। তবে সাদিক কম্পিউটারে নানান ধরনের গেমে আসক্ত ছিল। তার মধ্যে এইড নামে একটি গেমের সঙ্গে তার বেশি আসক্তি ছিল। তার কক্ষ থেকে ‘ইভেন ইন ডেথ, আই উইল বি হিরো’ লেখা কিছু তথ্যও পাওয়া গেছে। এতে মনে হতে পারে গেইমের কারণেও সে আত্মহত্যা করতে পারে। এছাড়া কলেজে সে কারো প্রেমে পড়েছিল কি না, কারো সঙ্গে বিরোধ ছিল কিনা, কিংবা অন্য কারনে কারণে সে আত্মহত্যা করেছে কিনা তার তদন্ত চলছে।

এই বিভাগের আরো খবর