রোববার   ২০ অক্টোবর ২০১৯   কার্তিক ৫ ১৪২৬   ২০ সফর ১৪৪১

বরিশাল প্রতিবেদন
ব্রেকিং:
ফাদার রিগনের মৃত্যুবার্ষিকী আজ বিকেলে যুবলীগ নেতাদের সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর বৈঠক অখ্যাত মায়োর্কার মাঠে রিয়ালের প্রথম হার টেকনাফে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ ২ মাদক ব্যবসায়ী নিহত শ্রমিকের স্বার্থে কাজ করছে সরকার: শ্রম প্রতিমন্ত্রী যুবলীগ থেকে বহিষ্কার কাউন্সিলর রাজীব টেকনাফে পৃথক অভিযানে ইয়াবাসহ ৩ রোহিঙ্গা আটক রাজীবের মোহাম্মদপুরের বাসায় অভিযান পরিচালনা করছে র‌্যাব অস্ত্র ও মাদকসহ রাজীবকে আটক করেছে র‌্যাব কাউন্সিলর তারেকুজ্জামান রাজিব গ্রেফতার আসছে ‘জলের গান’র অ্যালবাম, থাকছে বারী সিদ্দিকীর গান বছর শেষ হলেই বাতিল হচ্ছে ২ হাজার রুপির নোট ঢাকায় আসছেন নিউইয়র্ক সিটির ৫ সিনেটর বাকেরগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের বিশেষ বর্ধিত সভা অনুষ্ঠিত দাইয়ুস জান্নাতে যাবে না ড্রাগনের রক্ত বয়ে চলেছে যে গাছ! বালিশকাণ্ডের মতো কলঙ্কজনক কাজ যেন না হয় :পরিকল্পনামন্ত্রী দলে অনুপ্রবেশকারীদের জায়গা দেওয়া হবে না: নাসিম দোয়া পাওয়ার জন্য রাজনীতি করি : শামীম ওসমান আর্থিক সংকটে দুদিন বন্ধ জাতিসংঘ
৩৭

দিনাজপুরে ঘুষের টাকাসহ ২ সরকারি কর্মকর্তাকে গ্রেফতার করেছে দুদক

প্রকাশিত: ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯  

ঘুষের ৩০ হাজার টাকাসহ দিনাজপুরে দুই সরকারি কর্মকর্তাকে গ্রেফতার করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। তারা হলেন দিনাজপুর জেলা হিসাবরক্ষণ অফিসের অডিটর মো. আনোয়ার পাশা ও তুলা উন্নয়ন বোর্ডের ক্যাশিয়ার ফেরদৌস হোসেন।
রবিবার (২২ সেপ্টেম্বর) বেলা সাড়ে ৩টার দিকে তাদের গ্রেফতার করা হয়।
দুদক উপপরিচালক (জনসংযোগ) প্রণব কুমার ভট্টাচার্য্য জানিয়েছেন, এই দুজনের বিরুদ্ধে দুদকের সমন্বিত জেলা কার্যালয় দিনাজপুরে মামলা হয়েছে।

দুদক জানায়, সম্প্রতি মো. ফরহাদ হোসেন নামে এক ব্যক্তি অভিযোগ করেন, তার বাবা মো. খলিলুর রহমান তুলা উন্নয়ন বোর্ডের গো-পালক পদে চাকরি করতেন। ২০১২ সালে অবসরে যান তিনি। মারা যান ২০১৬ সালে। জীবিত থাকা অবস্থায় তিনি তুলা উন্নয়ন বোর্ড ও জেলা হিসাবরক্ষণ অফিসের কয়েকজন কর্মকর্তার চাহিদা অনুযায়ী ঘুষ দেননি। এর ফলে তারা ইচ্ছাকৃতভাবে ভুল হিসাব দেখিয়ে ১ লাখ ২০ হাজার টাকা পেনশন কম দেন। এ নিয়ে কথা বলেও কোনও সুরাহা হয়নি। কারণ, ঘুষের বিনিময়েই কেবল ইচ্ছাকৃত এই ভুল সংশোধন করা হবে বলে ফরহাদকে জানিয়ে দেন জেলা হিসাবরক্ষণ অফিসের অডিটর আনোয়ার পাশা।
দুদক জানায়, সর্বশেষ গত আগস্টে আনোয়ার বিষয়টি নিয়ে ফরহাদকে তুলা উন্নয়ন বোর্ডের ক্যাশিয়ার ফেরদৌসের সঙ্গে কথা বলতে বলেন। ফেরদৌসের সঙ্গে যোগাযোগ করলে ফরহাদকে বলা হয়, তার বাবার পেনশনের ১ লাখ ২০ হাজার টাকা পেতে হলে ৪০ হাজার টাকা ঘুষ দিতে হবে। এ অবস্থায় আনোয়ার ও ফেরদৌসকে ১০ হাজার টাকা দেন ফরহাদ। কিন্তু বাকি টাকা দেওয়া না হলে কাজ হবে না বলে জানিয়ে দেন তারা। পরে ফরহাদ বিষয়টি দুদককে জানান।
সেই অনুযায়ী রবিবার ফাঁদ পাতে দুদক। দুদকের পাতানো ফাঁদে ঘুষের ৩০ হাজার টাকাসহ গ্রেফতার হয় আনোয়ার ও ফেরদৌস।
দুদক জানায়, সমন্বিত জেলা কার্যালয় দিনাজপুরের সহকারী পরিচালক মো. আহসানুল কবীর পলাশের নেতৃত্বে ৭ সদস্যের টিম জেলা হিসাবরক্ষণ অফিসের অভিযান চালিয়ে গ্রেফতার করে তাদের।

এই বিভাগের আরো খবর