• সোমবার   ৩০ নভেম্বর ২০২০ ||

  • অগ্রাহায়ণ ১৬ ১৪২৭

  • || ১৪ রবিউস সানি ১৪৪২

বরিশাল প্রতিবেদন
ব্রেকিং:
করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ২৯, শনাক্ত ১৭৮৮ মূর্তি আর ভাস্কর্য এক নয়: ধর্ম প্রতিমন্ত্রী বিএনপির গণতন্ত্র হচ্ছে ‘মুখে শেখ ফরিদ আর বগলে ইট’: কাদের ঢাকা থেকে পায়রাবন্দর পর্যন্ত রেললাইন নিয়ে যাব: প্রধানমন্ত্রী একুশে পদকপ্রাপ্ত ওস্তাদ শাহাদাত হোসেন খান আর নেই করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৩৬, শনাক্ত ১৯০৮ ভ্যাকসিনের জন্য ৫০ শতাংশ টাকা ছাড়: স্বাস্থ্যমন্ত্রী করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৩৭, শনাক্ত ২২৯২ কিংবদন্তি ফুটবলার ম্যারাডোনা আর নেই এসআই আকবরকে পালাতে সহায়তাকারী ২ পুলিশ বরখাস্ত করোনায় আরও ৩৯ জনের মৃত্যু ডিসেম্বরেই এইচএসসির ফল: শিক্ষামন্ত্রী করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ২৮, শনাক্ত ২৪১৯ ববি শিক্ষার্থী সাওদা হত্যাকাণ্ডে আসামির যাবজ্জীবন করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৩৮, শনাক্ত ২০৬০ স্বাধীনতার ইতিহাস বিকৃত করাই বিএনপির গণতন্ত্র: কাদের প্রখ্যাত আলেম পীরজাদা গোলাম সারোয়ার সাঈদী আর নেই মানুষের কঙ্কালসহ গ্রেফতার বাপ্পী তিন দিনের রিমান্ডে শ্রাবন্তীকে কুপ্রস্তাবের অভিযোগে খুলনায় যুবক গ্রেফতার ডিসেম্বরের মাঝামাঝিতে বসবে পদ্মাসেতুর অবশিষ্ট ৪ স্প্যান: কাদের

টেকসই পরিবেশ সৃষ্টিতে সরকার কাজ করছে : পরিবেশমন্ত্রী

বরিশাল প্রতিবেদন

প্রকাশিত: ২১ অক্টোবর ২০২০  

পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রী মো. শাহাব উদ্দিন বলেছেন, ব্যাপকভাবে বনায়ন কর্মসূচি বাস্তবায়ন এবং সকল প্রকার দূষণ নিয়ন্ত্রণের মাধ্যমে টেকসই পরিবেশ সৃষ্টিতে কাজ করছে সরকার

বুধবার (২১ অক্টোবর) বিকেলে পরিবেশমন্ত্রীর সঙ্গে নরওয়ের রাষ্ট্রদূত এসপেন রিক্টার সেন্ডসান এক ভিডিও কনফারেন্সে যুক্ত হয়ে সৌজন্য সাক্ষাৎ করলে তিনি এ কথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশ এখন জলবায়ু পরিবর্তনবিষয়ক বিভিন্ন আন্তর্জাতিক ফোরামে নেতৃত্ব দিচ্ছে। ক্লাইমেট ভালনারাবিলিটি ফোরাম ও গ্লোবাল সেন্টার অব এডাপটেশনের ঢাকার আঞ্চলিক অফিস কাজ শুরু করায়, জলবায়ু পরিবর্তন বিষয়ে আন্তর্জাতিক ফোরামে বাংলাদেশ আরও জোরালো ভূমিকা পালন করতে পারবে।

সাক্ষাৎকালে পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব (পরিবেশ) মাহমুদ হাসান, অতিরিক্ত সচিব (উন্নয়ন) আহমদ শামীম আল রাজী, অতিরিক্ত সচিব (জলবায়ু পরিবর্তন) মো. মিজানুল হক চৌধুরী এবং পরিবেশ অধিদফতরের মহাপরিচালক ড. এ. কে. এম রফিক আহাম্মাদ বক্তব্য রাখেন।

নরওয়ের রাষ্ট্রদূত বলেন, বাংলাদেশ ও নরওয়ের মধ্যে পরিবেশগত অনেক মিল আছে। উভয় দেশই সমুদ্রের পাড়ে অবস্থিত। সেজন্য দুই দেশের সমুদ্র নিয়ে কাজ করার সুযোগ আছে।

তিনি আরও বলেন, নরওয়ের জাহাজ ভাঙা শিল্পে কাজ করার অভিজ্ঞতা আছে। এক্ষেত্রে পারস্পরিক সহযোগিতা বৃদ্ধি করা যেতে পারে। নরওয়ে এখন ব্যবসায় ও বিনিয়োগ করতে আগ্রহী বলে তিনি জানান।

আলোচনাকালে তারা জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব মোকাবিলা, দারিদ্র্য দূরীকরণ, প্লাস্টিক দূষণ নিয়ন্ত্রণসহ অন্যান্য ক্ষেত্রে একযোগে কাজ করা সম্ভাবনার বিষয়ে আলোচনা করেন। তারা বর্জ্য ব্যবস্থাপনা, বায়োগ্যাসসহ বিভিন্ন উন্নয়ন কার্যক্রম এবং জলবায়ু পরিবর্তন সংক্রান্ত বিভিন্ন ক্ষেত্রে একযোগে কাজ করার অঙ্গীকার ব্যক্ত করেন। এ সময় সহযোগিতার ক্ষেত্রগুলো চিহ্নিত করে ভবিষ্যতে একসঙ্গে এগিয়ে যাওয়ার ওপর গুরুত্বারোপ করা হয়।