• শুক্রবার   ২৯ মে ২০২০ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ১৪ ১৪২৭

  • || ০৬ শাওয়াল ১৪৪১

বরিশাল প্রতিবেদন
ব্রেকিং:
বিকেল ৪টার মধ্যে বন্ধ করতে হবে দোকান-শপিংমল দেশে ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত ২ হাজার ছাড়ালো, মৃত্যু ১৫ স্বাস্থ্যবিধি মেনে ৩১ মে থেকে গণপরিবহন চালুর সিদ্ধান্ত দেশে একদিনে নতুন শনাক্ত ১৫৪১, মৃত্যু ২২ জীবন বাঁচাতে জীবিকাও সচল রাখতে হবে: কাদের ২৪ ঘণ্টায় সর্বোচ্চ ১৮৭৩ জন শনাক্ত, মৃত্যু আরও ২০ জনের র‌্যাব-৮ এর অভিযানে মাদারীপুর থেকে জেএমবি’র সক্রিয় সদস্য গ্রেফতার ২৪ ঘণ্টায় ২৪ জনের মৃত্যু, আক্রান্ত ছাড়াল ৩০ হাজার মমতাকে সহমর্মিতা জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ফোন মোংলা ও পায়রা বন্দরে ১০ নম্বর মহাবিপদ সংকেত মহাবিপদ সংকেত জারি সকালে, রাতের মধ্যে আসতে হবে আশ্রয় কেন্দ্রে ২ লাখ ৫ হাজার কোটি টাকার উন্নয়ন বাজেট অনুমোদন আম্পানের আঘাতে ১০ ফুটের অধিক উচ্চতার জলোচ্ছ্বাসের আশঙ্কা আরও ১২৫১ করোনা রোগী শনাক্ত, মৃত্যু ২১ জনের আরও ৭ হাজার কওমি মাদ্রাসাকে প্রধানমন্ত্রীর অর্থ সহায়তা পায়রা-মংলায় ৭, চট্টগ্রাম-কক্সবাজারে ৬ নম্বর বিপদ সংকেত দেশে একদিনে আক্রান্ত ও মৃত্যুর নতুন রেকর্ড বরিশালে ঘণ্টায় ৪৫-৬০ কিমি. বেগে বৃষ্টি বা বজ্রবৃষ্টির আশঙ্কা সমুদ্রসীমায় অবৈধ মৎস্য আহরণ বন্ধ করতে হবে: প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী পাঁচ হাজার টেকনোলজিস্ট নিয়োগের ঘোষণা স্বাস্থ্যমন্ত্রীর
১৩

করোনায় ‘সরকারি লকডাউন’ নিয়ে রিজভীর মিথ্যাচার, সমালোচনা তুঙ্গে

বরিশাল প্রতিবেদন

প্রকাশিত: ১৭ মে ২০২০  

এবার করোনাকালীন লকডাউন নিয়ে সরকারের বিরুদ্ধে মিথ্যাচারিতায় নেমেছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী আহমেদ। শনিবার (১৬ মে) দুপুরে রাজধানীর কাপ্তান বাজার এলাকায় সামাজিক দূরত্ব না মেনে এক অনুষ্ঠানে তিনি সরকারের বিরুদ্ধে এই মিথ্যাচার করেন।

বিশিষ্টজনরা বলছেন, নালিশ আর মিথ্যাচারিতা করাই বিএনপির কাজ। এটা তাদের পুরনো অভ্যাস। নিজেদের দোষ অন্যের ঘাড়ে চাপিয়ে তারা যেন এক পৈশাচিক আনন্দ পান। যে ধারাবাহিকতা তারা করোনা সংকটেও অব্যাহত রেখেছেন। এ থেকেই তাদের অস্বচ্ছ রাজনৈতিক মতাদর্শের নিদারুণ প্রমাণ মেলে।

নির্ভরযোগ্য একটি সূত্র জানিয়েছে, নিজেদের দলীয় রাজনৈতিক এজেন্ডা বাস্তবায়নের উদ্দেশ্যে দেশ ও বিদেশের বিভিন্ন স্থান থেকে বিএনপি, ২০ দলীয় নেতাকর্মী ও তাদের পেইড বুদ্ধিজীবী-সাংবাদিকরা একের পর এক মনগড়া মিথ্যা তথ্য পরিবেশন করে সরকারবিরোধী অপপ্রচার অব্যাহত রেখেছেন।

তারই অংশ হিসেবে শনিবার (১৬ মে) রাজধানীতে এক অনুষ্ঠানে বিএনপির দলীয় সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব বলেছেন, ‘সরকার সংকট সমাধান করে না সংকট সৃষ্টি করছে। সংকট সমাধান করলে কখনোই ত্রাণ লুটপাট হতো না। করোনাভাইরাস মহামারি আকার ধারণ করত না। লকডাউন শিথিল করে সারা দেশে করোনাভাইরাস ছড়িয়ে দিতে সুযোগ সৃষ্টি করে দিয়েছে সরকার। প্রতিদিন হাজারের বেশি লোক আক্রান্ত হচ্ছে। সরকার করোনা মোকাবিলায় সম্পূর্ণ ব্যর্থ।’

রিজভীর এই বক্তব্যকে ‘রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত’ উল্লেখ করে দেশের রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা বলছেন, চোরের মায়ের সবসময়ই বড় গলা হয়। আর এ কারণে বিএনপির দলীয় নেতাকর্মীরা এতো উচ্চবাচ্য করেন। তারা চলমান করোনা সংকটে জনমানুষের জন্য কি করেছেন, সে সম্পর্কে সবাই অবহিত। সবাই দেখেছেনও ধান কাটার নাম করে কৃষকদের থেকে চাঁদাবাজি ও তাদের মারধর, ত্রাণ সহায়তায় অর্ধ পচাগলা খাবার বিতরণ, দলীয় লোকের বাইরে কাউকে ত্রাণ না দেওয়াসহ তারা মানুষের উপর কি অত্যাচারই না করেছেন! সেই তারাই আবার এখন এসে সরকারের বিরুদ্ধে বড় গলায় মিথ্যাচার করছেন, সত্যিই সেলুকাস!

রাজনীতি বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর