• শুক্রবার   ০৭ মে ২০২১ ||

  • বৈশাখ ২৪ ১৪২৮

  • || ২৪ রমজান ১৪৪২

বরিশাল প্রতিবেদন
ব্রেকিং:
অনলাইনে পরীক্ষা নিতে পারবে বিশ্ববিদ্যালয়গুলো আজই ফিরছেন সাকিব-মুস্তাফিজ যে যেখানে আছেন সেখানেই ঈদ উদযাপন করুন: প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়ার আবেদন পেয়েছি, দ্রুত সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে: আইনমন্ত্রী যুক্তরাষ্ট্রের কাছে ২০ মিলিয়ন টিকা চেয়েছে বাংলাদেশ: আব্দুল মোমেন গ্রামে বাড়ি নির্মাণে ইউনিয়ন পরিষদের অনুমতি লাগবে: তাজুল করোনা প্রাণ নিল আরও ৫০ জনের, নতুন শনাক্ত ১৭৪২ সেরামের টিকা না পেলে টাকা ফেরত চাওয়া হবে: অর্থমন্ত্রী ধান-চাল ক্রয়ের জন্য অত্যন্ত যৌক্তিক দাম নির্ধারণ: কৃষিমন্ত্রী শপিংমল খোলা রাত ৮টা পর্যন্ত ১২ মে’র আগেই আসবে চীনের টিকা: পররাষ্ট্রমন্ত্রী ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় তাণ্ডবের ঘটনায় আরো ১০ জন গ্রেফতার করোনায় একদিনে আরও ৬১ জনের মৃত্যু বাঁশখালীতে নিহতদের পরিবারকে ৫ লাখ টাকা করে দেয়ার নির্দেশ জুনায়েদ আল হাবিব আরও ৪ দিনের রিমান্ডে নাশকতার মামলায় ফের ৫ দিনের রিমান্ডে মামুনুল হক জামায়াত-শিবিরের ৮ নেতাকর্মী আটক করোনায় প্রাণ গেল আরও ৬৫ জনের, শনাক্ত ১৭৩৯ ‘লকডাউন’ বাড়লো ১৬ মে পর্যন্ত অর্থবিত্তে বড় হলেও সত্য সংবাদ পরিবেশন হওয়া উচিত: তথ্যমন্ত্রী

কমলাপুর স্টেশন অক্ষত রেখেই মেট্রোরেলের পরিকল্পনা

বরিশাল প্রতিবেদন

প্রকাশিত: ১৩ ফেব্রুয়ারি ২০২১  

কমলাপুর রেলস্টেশন থেকে পর্যাপ্ত দূরত্ব রেখেই মেট্রোরেলের স্টেশন নির্মিত হবে। সেক্ষেত্রে মেট্রোরেলের জন্য কমলাপুর রেলস্টেশন ভাঙার প্রয়োজন নেই বলে জানিয়েছে মেট্রোরেল কর্তৃপক্ষ। এদিকে স্থপতি মোবাশ্বের হোসেনও মনে করেন- কমলাপুর রেলস্টেশনকে অক্ষত রেখে সবকিছুই বিকল্প পরিকল্পনার মাধ্যমে করা সম্ভব। এ বিষয়ে আশ্বস্ত করেছেন রেলমন্ত্রীও।

তিনি জানান, কমলাপুর রেলস্টেশনকে রেখেই সব উন্নয়নমূলক কর্মকান্ড বাস্তবায়নের চেষ্টা করা হচ্ছে। দেশের প্রথম মেট্রোরেল এমআরটি-৬ উত্তরা থেকে মিরপুর, আগারগাঁও, মতিঝিল হয়ে যাবে কমলাপুর পর্যন্ত। দেশের প্রথম পাতাল মেট্রোরেলের গন্তব্যও কমলাপুর। মেট্রোরেল-১ নামে এটি রাজধানীর এয়ারপোর্ট থেকে শুরু হবে। রাজধানীর আরেক মেগাপ্রকল্প এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ে। এটি এয়ারপোর্ট থেকে শুরু হয়ে বনানী, মগবাজার, কমলাপুর হয়ে যাবে ঢাকা চট্টগ্রাম মহাসড়কের কুতুবখালী পর্যন্ত। এসব মেগাপ্রকল্পকে ঘিরে কমলাপুরকে নিয়ে নতুনভাবে ভাবছে সরকার। বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কর্মকান্ডের মাধ্যমে মাল্টিমোডাল হাব নির্মিত হবে কমলাপুরে। যে কারণে গত কিছুদিন ধরে খবরের অন্যতম শিরোনাম, ভাঙা পড়ছে কমলাপুর রেলস্টেশন। কিন্তু-মেট্রোরেল কর্তৃপক্ষ বলছে, তাদের জন্য ভাঙার প্রয়োজন পড়বে না কমলাপুর রেলস্টেশন। স্টেশন থেকে কমপক্ষে ৩০ মিটার দূরে হচ্ছে মেট্রোরেলের স্টেশন।

মেট্রোরেলের অতিরিক্ত প্রকল্প পরিচালক আবদুল বাকী মিয়া বলছেন, আমাদের জন্য ভাঙার প্রয়োজন নেই কমলাপুর রেলস্টেশন। কারণ, কমলাপুর স্টেশন থেকে মেট্রোরেল স্টেশনের দূরত্ব ৩০ মিটার। এ বিষয় নিয়ে এরই মধ্যে বাংলাদেশ স্থপতি ইনস্টিটিউটের পক্ষ থেকে দেশের খ্যাতনামা স্থপতিগণ সাক্ষাৎ করেছেন রেলমন্ত্রীর সঙ্গে। স্থপতি ইনস্টিটিউটের সভাপতি মোবাশ্বের হোসেন বলেছেন, কমলাপুর স্টেশন না ভেঙেই বিকল্প পরিকল্পনা অনুযায়ী অন্যসব বহুতল স্থাপনা নির্মাণ সম্ভব।

তিনি বলেন, জাপানি কোম্পানি যা যা করতে চাচ্ছে সব কিছুই কমলাপুর রেলস্টেশন অক্ষত রেখেই করা সম্ভব। তাই অযথাই প্রাচীন এই স্থাপনা ভাঙার কোনো মানেই হয় না। রেলমন্ত্রী নুরুল ইসলাম সুজন বলেছেন, বিভিন্ন মেগাপ্রকল্পের কারণে ভবিষ্যতে কমলাপুরকে উন্নত বিশ্বের আদলে গড়ে তোলা হবে। সেজন্য-শাহজাহানপুর থেকে কমলাপুর পর্যন্ত বেশ কয়েকটি ভবন-স্থাপনা পুনরায় নির্মাণ করা হবে। তবে তিনি দাবি করেন, কমলাপুর রেলস্টেশন ভাঙার তথ্যটি ভুল। আমরা চাচ্ছি, এই স্টেশনটিকে অক্ষত রেখেই উন্নত বিশ্বের মতো করে সব স্থাপনা নতুন করে সাজাতে। কমলাপুর রেলস্টেশন এবং শাহজাহানপুর রেলওয়ে আবাসিক এলাকা ঘিরে বাণিজ্যিক পরিকল্পনা নিয়ে এগোচ্ছে রেলপথ মন্ত্রণালয়, তাকে বলা হচ্ছে ‘মাল্টিমোডাল হাব’। জাপানের কাজিমা করপোরেশনের পরামর্শ অনুযায়ী তা বাস্তবায়নে এগিয়ে চলছে প্রকল্প।