মঙ্গলবার   ১২ নভেম্বর ২০১৯   কার্তিক ২৭ ১৪২৬   ১৪ রবিউল আউয়াল ১৪৪১

বরিশাল প্রতিবেদন
ব্রেকিং:
দুটি বড় ধরনের ঘূর্নিঝড় মোকাবেলা করতে হলো সাদিক আবদুল্লাহকে সংসদে বাংলাদেশের পতাকবাহী জাহাজ (সুরক্ষা) বিলের রিপোর্ট উপস্থাপন মডেল ফার্মেসী উদ্বোধন করেন ঔষধ প্রশাসন অধিদপ্তরের মহাপরিচালক মুজিব বর্ষ উদযাপনে ভারতের আগ্রহ রয়েছে: রাম মাধব বাংলা বন্ড চালু বিশ্ব অথনীতিতে একটি বড় পদক্ষেপ:অর্থমন্ত্রী ইন্দো-প্যাসিফিক সহযোগিতা বাড়ানোর ওপর গুরুত্ব আরোপ মোমেনের ২০২০ সালের হজ নিয়ে সৌদির সাথে বাংলাদেশের চুক্তি ১ ডিসেম্বর সম্প্রচারের অপেক্ষায় ১১টি বেসরকারি টিভি র‌্যাবের অভিযানে রোহিঙ্গাদের পাসপোর্ট তৈরি চক্রের হদিস আন্তর্জাতিক আদালতে মিয়ানমারের বিরুদ্ধে গাম্বিয়ার মামলা মুক্তিযোদ্ধাদের মর্যাদা ফিরিয়ে দিয়েছেন শেখ হাসিনা: নাসিম বাণিজ্যমন্ত্রীর হাতে ফুল দিয়ে আলোর পথে ১৩ ডাকাত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ভূয়সী প্রশংসা লন্ডনে কমনওয়েলথ মেলায় আবাসিকে গ্যাস সংযোগের পরিকল্পনা সরকারের নেই পাঁচ দিনের সফরে কেনিয়া গেলেন পরিকল্পনামন্ত্রী শাহ আমানতে চার্জার লাইটের ব্যাটারি থেকে সোনা জব্দ জ্বিনে ধরেছে আইরিনকে! বরফের সুনামি! সোশ্যাল মিডিয়ায় তোলপাড় (ভিডিও) স্ত্রীর কাটা মাথা নিয়ে থানায় হাজির হলেন স্বামী! বুলবুলের পর এবার ধেয়ে আসছে ঘূর্ণিঝড় `পবন`
৪০

ওষুধ খাবেন আপনি, কামড়ালেই মরবে মশা

প্রকাশিত: ৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯  

ম্যালেরিয়া দমনের উদ্দেশে যুগান্তকারী ওষুধ আবিষ্কার করলেন কেনিয়ার বিজ্ঞানীরা। আবিষ্কারের মূল উপাদান এক বিশেষ ব্যাক্টেরিয়া, যা রোগের জীবাণু ধ্বংস করতে পুরোপুরি সফল। সাম্প্রতিক পরীক্ষায় মানবদেহে তা প্রয়োগ করে সুফল পাওয়া গেছে বলে দাবি করেছেন আবিষ্কারকরা। 

দ্য কেনিয়া মেডিকেল রিসার্চ ইনস্টিটিউট (কেমরি) এবং তাদের আন্তর্জাতিক স্বাস্থ্য সঙ্গীদের দাবি, আগামী দুই বছরের মধ্যে এই ব্যাক্টেরিয়াকে কাজে লাগিয়ে ম্যালিগন্যান্ট ম্যালেরিয়ার মতো মরণরোগ প্রতিরোধ করা সম্ভব হবে। 

চিকিৎসার এই নতুন দিশার সম্ভাবনা দেখা দেয় আফ্রিকান রাষ্ট্র বুরকিনা ফাসোতে রিভার ব্লাইন্ডনেস ও এলিফ্যান্টিয়াসিস-এর মতো পরীজীবী বাহিত রোগের চিকিৎসায় ইভেরমেসটিন নামে প্রচলিত একটি ব্যাক্টেরিয়াভিত্তিক ওষুধ রোগীর দেহে টিকার মাধ্যমে প্রবেশ করানোর পরে। দেখা যায়, এই ওষুধ রোগীর রক্তে রোগ সংক্রমণের হার কমাতে অনেকটা সক্ষম। গবেষণায় দেখা গেছে, লাগাতার টিকা নেয়ার কারণে রোগীর রক্তের রাসায়নিক পরিবর্তন ঘটায় তা মশার জন্য বিষাক্ত হয়ে ওঠে। 

মানবদেহে পরীক্ষার পরে জানা গেছে যে, প্ল্যাসমোডিয়াম ফ্যালসিপেরাম নামে নারী মশাবাহিত ম্যালেরিয়ার মারাত্মক জীবাণু ধ্বংস করার ক্ষমতা রয়েছে ইভেরমেসটিনের। এবার মানবদেহে এই ওষুধ প্রয়োগ করে তার ফলাফল যাচাই করবে আমেরিকার সেন্টারস ফর ডিজিস কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেন্টশন, যার পরে ওষুধটি বাজারজাত করার ছাড়পত্র মিলবে।