• শনিবার   ০৪ জুলাই ২০২০ ||

  • আষাঢ় ১৯ ১৪২৭

  • || ১৩ জ্বিলকদ ১৪৪১

বরিশাল প্রতিবেদন
ব্রেকিং:
গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আক্রান্ত ৪০১৯, মৃত্যু ৩৮ চালের বাজার অস্থিতিশীল করলে কঠোর ব্যবস্থা : খাদ্যমন্ত্রী গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আক্রান্ত ৩৭৭৫, মৃত্যু ৪১ যত্রতত্র পশুরহাটের অনুমতি দেওয়া যাবে না- ওবায়দুল কাদের জঙ্গিবাদ দমনে সফলতা ধরে রাখতে কাজ করে যাচ্ছি: র‌্যাব ডিজি ৩৮তম বিসিএসের চূড়ান্ত ফল প্রকাশ করোনায় ২৪ ঘণ্টায় ৬৪ মৃত্যু, শনাক্ত ৩৬৮৩ শিগগিরই আরও ৪ হাজার নার্স নিয়োগ: প্রধানমন্ত্রী করোনায় ২৪ ঘণ্টায় ৪৫ মৃত্যু, শনাক্ত ৪০১৪ অর্ধশত যাত্রী নিয়ে বুড়িগঙ্গায় লঞ্চডুবি, উদ্ধার কাজ চলছে করোনায় ২৪ ঘণ্টায় ৪৩ মৃত্যু, শনাক্ত ৩৮০৯ ফ্লাইট পরিচালনার অনুমোদন পাচ্ছে ৪ বিদেশি এয়ারলাইন্স অপরাধী ক্ষমতাবান হলেও ছাড় দেয়া হবে না: কাদের গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন ৩৫০৪ করোনা রোগী শনাক্ত, মৃত্যু ৩৪ গণপরিবহনে বেশি ভাড়া নিলে কঠোর ব্যবস্থার হুমকি সেতুমন্ত্রীর করোনায় ২৪ ঘণ্টায় ৩৯ মৃত্যু, শনাক্ত ৩৯৪৬ মানুষকে বাঁচানোই এখন একমাত্র রাজনীতি : কাদের ঢাকা-বেইজিং বাণিজ্য যোগাযোগ বাড়ানো হবে: চীনা রাষ্ট্রদূত করোনায় ২৪ ঘণ্টায় ৩৭ মৃত্যু, শনাক্ত ৩৪৬২ উপযুক্ত পরিবেশ হলেই এইচএসসি পরীক্ষা নেয়া হবে: শিক্ষামন্ত্রী
৬৭

উজিরপুর উপজেলায় ২৮ হাজার পরিবারের মাঝে সরকারী ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ

বরিশাল প্রতিবেদন

প্রকাশিত: ৬ জুন ২০২০  

বরিশালের উজিরপুর উপজেলায় করোনা ভাইরাসের কারনে বাহিরে গিয়ে কাজ করতে না পারা দরিদ্র ২৮হাজার পরিবারের সরকারী ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করা হয়েছে।

আজ শনিবার পর্যন্ত উপজেলার ৯টি ইউনিয়ন ও একটি পৌরসভার বিভিন্ন প্রত্যন্ত এলাকায় গিয়ে চাল, আলু, ডাল ও সাবান বিতরণ করেন বরিশাল-২আসনের এমপি মো.শাহে আলম, উজিরপুর উপজেলা চেয়ারম্যান আ.মজিদ শিকদার বাচ্চু, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা প্রনতি বিশ্বাস, পৌরমেয়র মো.গিয়াস উদ্দিন বেপারী, উপজেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি এসএম জামাল হোসেন ও উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা অয়ন সাহা প্রমুখ।

এ পর্যন্ত উজিরপুর উপজেলার ২৮হাজার দরিদ্র পরিবারের মাঝে সরকারী ভাবে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করা হয়েছে। উজিরপুর উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা অয়ন সাহা সাংবাদিকদের বলেন, করোনার কারনে সরকার থেকে উজিরপুর উপজেলার ৯টি ইউনিয়ন ও একটি পৌরসভার জন্য সরকারী ভাবে ২৯৯ মেট্রিকটন চাল ও নগদ ১২লক্ষ ৫৫হাজার টাকা বরাদ্দ পাওয়া গেছে। এর মধ্য থেকে নগদ টাকা দিয়ে আলু, ডাল ও সাবান ক্রয় করে সরকারী ১০ কেজি চালের সাথে প্যাকেট করে বিতরণ করা হয়। আমরা নিজেরা প্যাকেট করে প্রতিটি ইউনিয়ন পরিষদে পাঠিয়ে দেই। পরে সবার উপস্থিতিতে ইউনিয়ন পরিষদের মাধ্যমে দরিদ্র পরিবারের মাঝে এই ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করা হয়। প্রতিটি ইউনিয়নে ত্রাণ বিতরণের সময় সরকারী ট্যাগ কর্মকর্তারা উপস্থিত থাকেন। যাতে ত্রাণ বিতরণের অনিয়ম না হয়।

উপজেলা চেয়ারম্যান আ.মজিদ শিকদার বাচ্চু সাংবাদিকদের বলেন, সরকার থেকে পাওয়া ত্রাণ সামগ্রী দরিদ্র পরিবারের মাঝে বিতরণ করা হয়েছে। এছাড়াও অতিদরিদ্র পরিবারকে সরকার থেকে নগদ অর্থসহায়তা করা হচ্ছে। প্রয়োজন হলে দরিদ্র পরিবারকে আরোও  ত্রাণ সামগ্রী দেওয়া হবে। 
 

উপজেলা বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর