• মঙ্গলবার   ২৭ অক্টোবর ২০২০ ||

  • কার্তিক ১২ ১৪২৭

  • || ১০ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

বরিশাল প্রতিবেদন
ব্রেকিং:
হাজী সেলিমের ছেলের ১ বছরের কারাদণ্ড করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ১৫, শনাক্ত ১৪৩৬ সাংসদ হাজী সেলিমের ছেলে ইরফান গ্রেপ্তার কেউ অপরাধ করলে তাকে আইনের মুখোমুখি হতে হবে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী মিল মালিক, পাইকার ও ফড়িয়ারা ষড়যন্ত্রে লিপ্ত: কৃষিমন্ত্রী করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ২৩, শনাক্ত ১৩০৮ পদ্মা সেতুতে বসলো ৩৪তম স্প্যান নৈরাজ্য সৃষ্টিকারী কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ১৯, শনাক্ত ১০৯৪ ব্যারিস্টার রফিক-উল হক মারা গেছেন সারা দেশের নৌ ধর্মঘট প্রত্যাহার করোনায় ২৪ ঘণ্টায় ২৪ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ১৬৯৬ বিপদে নিজেদের একা ভাববেন না: আইনমন্ত্রী করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ২৪, শনাক্ত ১৫৪৫ এনু-রুপনের জামিন আবেদনের রুল খারিজ মাধ্যমিকে বার্ষিক পরীক্ষা বাতিল রায়হান হত্যা: ৫ দিনের রিমান্ডে কনস্টেবল টিটু ১২ বছরের ব্যর্থতার জন্য বিএনপির নেতৃত্বের পদত্যাগ করা উচিত বিদেশে পালালেও এসআই আকবরকে ফিরিয়ে আনা হবে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী পরিপত্র জারি : ৭ মার্চকে ঐতিহাসিক দিবস ঘোষণা

আর্মেনিয়া-আজারবাইজান যুদ্ধে নিহত ৫৭

বরিশাল প্রতিবেদন

প্রকাশিত: ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০  

হঠাৎ করেই যুদ্ধে জড়িয়ে পড়েছে ইউরেশিয়ার দুই প্রতিবেশী দেশ আর্মেনিয়া ও আজারবাইজান। বিতর্কিত নাগোরনো-কারাবাখ অঞ্চলকে কেন্দ্র করে রোববার (২৭ সেপ্টেম্বর) থেকে শুরু হওয়া এই যুদ্ধে ইতোমধ্যে উভয়পক্ষের ৫৭ জনেরও বেশি নিহত এবং আরো শতাধিক আহত হয়েছেন বলে জানিয়েছে বিবিসি।

আর্মেনিয়ার বিদ্রোহী গোষ্ঠীর কর্মকর্তাদের বরাত দিয়ে আজ সোমবার আল জাজিরার খবরে বলা হয়েছে, দেশটিতে এখন পর্যন্ত ১৬ জন বিচ্ছিন্নতাবাদী এবং দুই জন বেসামরিক নাগরিকের মৃত্যু হয়েছে। আহত হয়েছেন আরো শতাধিক লোক।

অন্যদিকে, আজারবাইজানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, যুদ্ধ শুরু হওয়ার পর এখন পর্যন্ত আর্মেনিয়ার বাহিনীর আক্রমণে তাদের অন্তত ৬ জন বেসামরিক নাগরিক নিহত এবং আহত হয়েছেন ১৯ জন।

যে অঞ্চলটি নিয়ে সংঘর্ষ, সেই নাগরেনো-কারাবাখের কর্মকর্তারা জানান, আজারবাইজানের সেনাবাহিনীর আক্রমণে তাদের আরো ১৫ সেনা নিহত হয়েছেন। এ নিয়ে নিহতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৩১ জনে। এ ছাড়া তারা কিছু ভূমিও দখল করেছে।

এদিকে, আজারবাইজান প্রথমে বিমান ও কামান দিয়ে হামলা শুরু করে বলে দাবি করেছে আর্মেনিয়া। সেটির জবাবে পরে সামরিকভাবে পাল্টা হামলা চালায় তারা। যদিও আজারবাইজান বলছে, আর্মেনিয়াই প্রথমে হামলা চালিয়েছে।

চলতি বছরের জুলাই মাসের শুরুর দিকে আর্মেনিয়া যুদ্ধবিরতি লঙ্ঘন করে হামলা চালায়। এতে ১২ আজারবাইজানীয় সেনা নিহত এবং আরো চার জন আহত হন। এর আগে ২০১৬ সালের রক্তক্ষয়ী যুদ্ধে ২০০ জনের বেশি নিহত হয়। 

সোভিয়েত ইউনিয়নের অন্তর্ভুক্ত সাবেক এই দেশ দুটির মধ্যে ১৯৯১ সাল থেকেই সম্পর্কের অবনতি হতে শুরু করে, যখন আর্মেনিয়ান সামরিক বাহিনী উচ্চতর কারাবাখ বা নাগার্নো-কারাবাখ অঞ্চল দখল করে। এটি আজারবাইজানের আন্তর্জাতিকভাবে স্বীকৃত একটি অঞ্চল ছিল।