শনিবার   ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২০   ফাল্গুন ৯ ১৪২৬   ২৭ জমাদিউস সানি ১৪৪১

বরিশাল প্রতিবেদন
ব্রেকিং:
দৃশ্যমান পদ্মা সেতুর পৌনে চার কিলোমিটার সারা দেশে শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত ইংরেজি উচ্চারণে বাংলা বলার সমালোচনা প্রধানমন্ত্রীর উন্নত দেশ গড়তে বেসরকারি সহযোগিতা প্রয়োজন: পররাষ্ট্রমন্ত্রী মুজিববর্ষে বিএনপিকেও আমন্ত্রণ জানানো হবে: কাদের ভণ্ডপীরসহ ৯ জনের কারাদণ্ড প্রধানমন্ত্রী সব সময় শিক্ষাকে গুরুত্ব দেন: পরিকল্পনামন্ত্রী মুজিব বর্ষে নতুন শিল্প কারখানা স্থাপন করা হবে: শিল্প প্রতিমন্ত্রী আসন্ন সেচ মৌসুমে লোডশেডিংয়ের শঙ্কা নেই : বিদ্যুৎ বিভাগ একুশে পদক হাতে তুলে দিলেন প্রধানমন্ত্রী শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস শুক্রবার একুশে পদক মেধা ও মনন চর্চার ক্ষেত্র সম্প্রসারিত করবে : রাষ্ট্রপতি আজ একুশে পদক প্রদান করবেন প্রধানমন্ত্রী এনামুল বাছিরের পদোন্নতির আবেদন হাইকোর্টে খারিজ জাপানের সঙ্গে জয়েন্ট ওয়ার্কিং গ্রুপ হবে : বাণিজ্যমন্ত্রী সমৃদ্ধ দেশ গড়তে সুস্থ যুব সমাজের বিকল্প নেই : প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ ডাকঘর সঞ্চয়ের সুদহার পুনর্বিবেচনা করা হবে : অর্থমন্ত্রী মুঠোফোন প্রতারক জিনের বাদশা গ্রেফতার করোনাভাইরাস নিয়ে গুজবে কান দিবেন না : স্বাস্থ্যমন্ত্রী সাগর তীরে উঁচু স্থাপনা নির্মাণ না করার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর
৬৪

আর্জেন্টিনার ম্যাচটি বঙ্গবন্ধুর নামে করার প্রস্তাব

বরিশাল প্রতিবেদন

প্রকাশিত: ৮ অক্টোবর ২০১৯  

ক্রীড়াঙ্গনে এখন সবচেয়ে বড় খবর-দ্বিতীয়বার ঢাকা আসছে লিওনেল মেসির আর্জেন্টিনা। দিনক্ষণও চূড়ান্ত। আগামী ১৮ নভেম্বর বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে মেসিরা ফিফা ফ্রেন্ডলি ম্যাচ খেলবেন প্যারাগুয়ের বিরুদ্ধে।

যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয় এ ম্যাচটি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নামে করার প্রস্তাব দিয়েছে। প্রস্তাবটি দেয়া হয়েছে ম্যাচটি যাদের উদ্যোগে ঢাকায় হচ্ছে সেই এজেন্টের কাছে।

যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মো. জাহিদ আহসান রাসেল বলেছেন, ‘প্রতিষ্ঠানটি আমাদের সঙ্গে আলোচনা করে ম্যাচ আয়োজনের আনুষ্ঠানিক সম্মতি ও নিরাপত্তার নিশ্চয়তা চেয়েছিল। আমরা লিখিতভাবে তাদের জানিয়ে দিয়েছি সর্বোচ্চ নিরাপত্তা দেয়ার কথা। ওই চিঠিতেই আমরা প্রস্তাব দিয়েছি ম্যাচটি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নামে করার।’

আগামী বছর ১৭ মার্চ থেকে পরের বছর ১৭ মার্চ পর্যন্ত মুজিববর্ষ হিসেবে ঘোষণা করা হয়েছে। বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী শুরুর আগে আর্জেন্টিনা ও প্যারাগুয়ের ম্যাচটিকে প্রস্তুতি হিসেবে করার জন্য এই প্রস্তাব দিয়েছে ক্রীড়া মন্ত্রণালয়।

তবে যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মো. জাহিদ আহসান রাসেল বলেছেন, ‘বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকীতে আমাদের খেলাধুলার যে আয়োজনগুলো আছে, তার সাথে আর্জেন্টিনা ও প্যারাগুয়ের ম্যাচের সম্পর্ক নেই। আমাদের ওই ৩০৬ কোটি ২৪ লাখ টাকার বাজেট থেকে কোনো অর্থও ব্যয় হবে না এই ম্যাচে।’

এ ম্যাচটি বঙ্গবন্ধুর নামে হলেও আগামী বছর জাতির পিতার জন্মশতবার্ষিকীতে আরেকটি বড় ম্যাচ আয়োজনের উদ্যোগ নিয়েছে সরকার। ‘মাস তিনেক আগে ওই প্রতিষ্ঠান (এজেন্ট) আমাদের সাথে আলোচনা করে ব্রাজিল এবং অন্য একটি দেশ ঢাকায় এনে ম্যাচ আয়োজনের কথা বলেছিল। ব্রাজিলকে না পাওয়ায় পরে তারা আর্জেন্টিনা ও প্যারাগুয়ের ম্যাচের ব্যবস্থা করে। এই প্রতিষ্ঠানকেই আমরা আগামী বছর বড় কোন আন্তর্জাতিক ম্যাচ আয়োজনের প্রস্তাব দিয়ে রেখেছি।’

বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকীর ম্যাচের জন্য নির্দিষ্ট করে কোনো দলের কথা কি বলা হয়েছে এজেন্টকে? ‘বাংলাদেশে এর আগে খেলে গেছে আর্জেন্টিনা। আবারও আসছে ম্যারাডোনার দেশটি। ব্রাজিল আসেনি এখনো। তাই আমাদের নজর ব্রাজিলের ওপর আছে। আমরা এজেন্টকে বলেছি ব্রাজিল এবং অন্য কোন দেশের ম্যাচ হলে ভালো। ব্রাজিলের অনেক সমর্থক আছে বাংলাদেশে। তাই আমাদের প্রথম পছন্দ পেলে-নেইমারদের দেশ। না হলে ইউরোপের বড় দুটি ক্লাবের ম্যাচ। যে ক্লাবে বিশ্বের বড়বড় তারকা ফুটবলাররা খেলেন’-বলেছেন ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মো. জাহিদ আহসান রাসেল এমপি।

এই বিভাগের আরো খবর