বুধবার   ১৬ অক্টোবর ২০১৯   কার্তিক ১ ১৪২৬   ১৬ সফর ১৪৪১

বরিশাল প্রতিবেদন
ব্রেকিং:
একাদশ সংসদের পঞ্চম অধিবেশন শুরু ৭ নভেম্বর যেখানে দুর্নীতি-টেন্ডারবাজি সেখানে অভিযান- স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ন্যাম সম্মেলনে যোগ দিতে বাকু যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী রিফাত হত্যা : প্রধান আসামির জামিন নামঞ্জুর বিএসএমএমইউয়ে বিশ্ব অ্যানেসথেসিয়া ও মেরুদণ্ড দিবস পালিত মুন্সিগঞ্জের ১৩টি সেতু উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী কুড়িগ্রাম এক্সপ্রেসের উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী সরকারের ধারাবাহিকতার কারণেই উন্নয়ন প্রকল্প গতিশীল: প্রধানমন্ত্রী আজ কম্বোডিয়ার বিপক্ষে মাঠে নামবে বাংলাদেশ বিশ্ব অ্যানেসথেসিয়া দিবস আজ মিনিস্ট্রিয়াল কনসালটেশনে যোগ দিতে আমিরাতে প্রবাসী কল্যাণমন্ত্রী বিশ্ব খাদ্য দিবস আজ নিরাপদ খাদ্য নি‌শ্চিত করার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর বরিশালে ২৭ জেলের জেল-জরিমানা কখন গোসল করা ভালো, সকালে না রাতে? জনপ্রশাসনের ৬ কর্মচারী মাসের সেরা কর্মী নির্বাচিত নতুন প্রজন্মকে পরিচ্ছন্ন বাংলাদেশ গড়ার আহ্বান দেশের প্রথম বাণিজ্যিক সৌর প্লান্টের উৎপাদন শুরু পাকিস্তান সফরে প্রিন্স উইলিয়াম ও কেট মিডলটন বদলে গেল বাংলা বর্ষপঞ্জি, বুধবার ৩১ আশ্বিন
২১

আর্জেন্টিনার ম্যাচটি বঙ্গবন্ধুর নামে করার প্রস্তাব

প্রকাশিত: ৮ অক্টোবর ২০১৯  

ক্রীড়াঙ্গনে এখন সবচেয়ে বড় খবর-দ্বিতীয়বার ঢাকা আসছে লিওনেল মেসির আর্জেন্টিনা। দিনক্ষণও চূড়ান্ত। আগামী ১৮ নভেম্বর বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে মেসিরা ফিফা ফ্রেন্ডলি ম্যাচ খেলবেন প্যারাগুয়ের বিরুদ্ধে।

যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয় এ ম্যাচটি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নামে করার প্রস্তাব দিয়েছে। প্রস্তাবটি দেয়া হয়েছে ম্যাচটি যাদের উদ্যোগে ঢাকায় হচ্ছে সেই এজেন্টের কাছে।

যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মো. জাহিদ আহসান রাসেল বলেছেন, ‘প্রতিষ্ঠানটি আমাদের সঙ্গে আলোচনা করে ম্যাচ আয়োজনের আনুষ্ঠানিক সম্মতি ও নিরাপত্তার নিশ্চয়তা চেয়েছিল। আমরা লিখিতভাবে তাদের জানিয়ে দিয়েছি সর্বোচ্চ নিরাপত্তা দেয়ার কথা। ওই চিঠিতেই আমরা প্রস্তাব দিয়েছি ম্যাচটি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নামে করার।’

আগামী বছর ১৭ মার্চ থেকে পরের বছর ১৭ মার্চ পর্যন্ত মুজিববর্ষ হিসেবে ঘোষণা করা হয়েছে। বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী শুরুর আগে আর্জেন্টিনা ও প্যারাগুয়ের ম্যাচটিকে প্রস্তুতি হিসেবে করার জন্য এই প্রস্তাব দিয়েছে ক্রীড়া মন্ত্রণালয়।

তবে যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মো. জাহিদ আহসান রাসেল বলেছেন, ‘বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকীতে আমাদের খেলাধুলার যে আয়োজনগুলো আছে, তার সাথে আর্জেন্টিনা ও প্যারাগুয়ের ম্যাচের সম্পর্ক নেই। আমাদের ওই ৩০৬ কোটি ২৪ লাখ টাকার বাজেট থেকে কোনো অর্থও ব্যয় হবে না এই ম্যাচে।’

এ ম্যাচটি বঙ্গবন্ধুর নামে হলেও আগামী বছর জাতির পিতার জন্মশতবার্ষিকীতে আরেকটি বড় ম্যাচ আয়োজনের উদ্যোগ নিয়েছে সরকার। ‘মাস তিনেক আগে ওই প্রতিষ্ঠান (এজেন্ট) আমাদের সাথে আলোচনা করে ব্রাজিল এবং অন্য একটি দেশ ঢাকায় এনে ম্যাচ আয়োজনের কথা বলেছিল। ব্রাজিলকে না পাওয়ায় পরে তারা আর্জেন্টিনা ও প্যারাগুয়ের ম্যাচের ব্যবস্থা করে। এই প্রতিষ্ঠানকেই আমরা আগামী বছর বড় কোন আন্তর্জাতিক ম্যাচ আয়োজনের প্রস্তাব দিয়ে রেখেছি।’

বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকীর ম্যাচের জন্য নির্দিষ্ট করে কোনো দলের কথা কি বলা হয়েছে এজেন্টকে? ‘বাংলাদেশে এর আগে খেলে গেছে আর্জেন্টিনা। আবারও আসছে ম্যারাডোনার দেশটি। ব্রাজিল আসেনি এখনো। তাই আমাদের নজর ব্রাজিলের ওপর আছে। আমরা এজেন্টকে বলেছি ব্রাজিল এবং অন্য কোন দেশের ম্যাচ হলে ভালো। ব্রাজিলের অনেক সমর্থক আছে বাংলাদেশে। তাই আমাদের প্রথম পছন্দ পেলে-নেইমারদের দেশ। না হলে ইউরোপের বড় দুটি ক্লাবের ম্যাচ। যে ক্লাবে বিশ্বের বড়বড় তারকা ফুটবলাররা খেলেন’-বলেছেন ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মো. জাহিদ আহসান রাসেল এমপি।

এই বিভাগের আরো খবর