সোমবার   ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯   আশ্বিন ৭ ১৪২৬   ২৩ মুহররম ১৪৪১

বরিশাল প্রতিবেদন
ব্রেকিং:
বাচ্চাকে মারধর করায় থানা ঘেরাও হনুমানের! জাতীয় নারী দাবায় শীর্ষস্থানে রানী হামিদ ইউজিসির কাঠগড়ায় পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের ১৪ ভিসি ক্যাসিনোতে মিলল ধর্মীয় উপাসনা সামগ্রী! বিজয়নগর সায়েম টাওয়ার থেকে ১৭ জুয়ারী আটক ১৩ নেপালিকে মোটা অংকের বেতনে রাখা হয় জুয়া চালাতে স্পা সেন্টার থেকে আটক ১৬ নারী, ৩ পুরুষ আরও ১০ লক্ষ তরুণ-তরুণীর কর্মসংস্থান করা হবে- পলক আবুধাবি থেকে নিউইয়র্কের পথে প্রধানমন্ত্রী অজুহাতে কাজ আটকে রাখলে কঠোর ব্যবস্থা: গণপূর্তমন্ত্রী ব্যাংক নোটের আদলে টোকেন ব্যবহার করা যাবে না ঢাকা আসছেন বিশ্ব ব্যাংকের ভাইস প্রেসিডেন্ট ও জাতিসংঘের দূত খিলক্ষেতে বোমা হামলা: ৫ জেএমবির ১২ বছরের দণ্ড আরামবাগ-দিলকুশা ক্লাবে জুয়ার সরঞ্জাম উদ্ধার ভিক্টোরিয়া ক্লাব থেকে নগদ টাকা ও মদের বোতল উদ্ধার সৌদিতে শিরশ্ছেদ করে ১৩৪ জনের মৃত্যুদণ্ড শিশুদের কোলবালিশের ভেতর থেকে ১০ কেজি গাঁজা উদ্ধার! মতিঝিলে ৪ ক্লাবে পুলিশের অভিযান রিমান্ডে খালেদ ও শামীমের কাছ থেকে চাঞ্চল্যকর তথ্য ঢাকায় বাংলাদেশ-ভারত নৌবাহিনী প্রধানের সাক্ষাত

আনসারউল্লাহ বাংলা টিমের চার সদস্যের ১০ বছরের কারাদণ্ড

প্রকাশিত: ৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯  

 

ফরিদপুরে একটি বিস্ফোরক দ্রব্য আইনের মামলায় আনসারউল্লাহ বাংলা টিমের চার সদস্যকে ১০ বছর করে সশ্রম কারাদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন বিশেষ জজ আদালত। 

একই সঙ্গে প্রত্যেককে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও ছয় মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ডের আদেশ দেন আদালত। রায় ঘোষণার সময় ওই চার আসামি আদালতে হাজির ছিলেন। পরে বিশেষ পুলিশি নিরাপত্তার সঙ্গে আসামিদের জেলা কারাগারে নিয়ে যাওয়া হয়।   

সোমবার (৯ সেপ্টেম্বর) দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে ফরিদপুরের বিশেষ জজ আদালতের বিচারক মো. মতিয়ার রহমান এ আদেশ দেন।  

আদালত সূত্রে জানা যায়, ২০১৬ সালের ২৬ আগস্ট ভাঙ্গা বাজার থেকে ময়মনসিংহের একটি বোমা বিস্ফোরণ মামলার পলাতক আসামি ভাঙ্গার নাহিদ মোল্লাকে আটক করা হয়। তার কথা মতো ওই দিন বিকালে এই অঞ্চলের আনসারউল্লাহ বাংলা টিমের সামরিক কমান্ডার ফরিদ মৃধাকে তার বাড়ি সদরপুর উপজেলার দক্ষিণ আলমনগর গ্রাম থেকে আটক করা হয়। 

এ সময় তার কাছ থেকে একটি গুলি ভর্তি বিদেশি পিস্তল, গুলি ভর্তি একটি ওয়ান শুটার গান, ১২টি হাত বোমা, বোমা বানানোর পাউডার, বিস্ফোরক ও তার আরও দুই সহযোগীকে আটক করা হয়। পরে ওই রাতেই তাদের বিরুদ্ধে সদরপুর থানার ওসি (তদন্ত) আমিনুজ্জামান বাদী হয়ে একটি মামলা দায়ের করেন।

এ ঘটনায় আজ সোমবার ওই মামলার রায়ে আদালত বিস্ফোরক দ্রব্য আইনে আসামি ফরিদ মৃধাকে ১০ বছর সশ্রম কারাদণ্ড প্রদান করেন। একই সঙ্গে অপর তিন আসামিকেও অপরাধ সন্দেহাতীতভাবে প্রমাণিত হওয়ায় মো. শহিদুল ইসলাম, মো. মহসিন মোল্লা ও ভাঙ্গা উপজেলার মো. নাহিদ মোল্লাকে বিস্ফোরক দ্রব্য আইনে ১০ বছর সশ্রম কারাদণ্ড প্রদান জরিমানার আদেশ দেন। 

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে ফরিদপুর বিশেষ জজ আদালতের পিপি গোলাম রব্বানী ওরফে বাবু মৃধা জানান, এই মামলায় বিশেষ জজ আদালতের বিচারক মো. মতিয়ার রহমান প্রত্যেককে ১০ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড ও প্রত্যেককে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা করেন। জরিমানা অনাদায়ে আরও ছয় মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ডের আদেশ দেন। তিনি বলেন আমরা সরকার পক্ষ এই রায়ে খুশি হয়েছি। 

এই বিভাগের আরো খবর