শুক্রবার   ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯   আশ্বিন ৪ ১৪২৬   ২০ মুহররম ১৪৪১

বরিশাল প্রতিবেদন
ব্রেকিং:
ছাত্রলীগের পর যুবলীগকে ধরেছি : প্রধানমন্ত্রী ছাত্রলীগকে সংযমের সঙ্গে চলার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর প্রধানমন্ত্রীর সাথে যুক্তরাজ্য প্রতিনিধি দলের সাক্ষাত অবৈধ জুয়ার আড্ডা বা ক্যাসিনো চলতে দেওয়া হবে না: ডিএমপি কমিশনার পটুয়াখালীতে ধর্ষণ মামলার বাদীকে পেটানো প্রধান আসামিসহ গ্রেপ্তার-৪ শাহজালালে বিমানের জরুরি অবতরণ শুক্রবার নিউইয়র্ক যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী ফকিরাপুলের ক্যাসিনো থেকে আটক ১৪২ জনের জেল রাজধানীর তিনটি ক্যাসিনোতে র‌্যাবের অভিযান জিম্বাবুয়েকে হারিয়ে ত্রিদেশীয় সিরিজের ফাইনালে বাংলাদেশ রিয়াদের ফিফটিতে টাইগাররা ১৭৬ রানের লক্ষ্য দিলো জিম্বাবুয়েকে টস হেরে ব্যাটিং এ বাংলাদেশ রিফাত হত্যা : পলাতক ৯ জনের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা রোহিঙ্গা সংকট : ত্রিপক্ষীয় বৈঠকে বসছে চীন-মিয়ানমার-বাংলাদেশ আমাদের কাজই হচ্ছে জনগণকে সেবা দেয়া : প্রধানমন্ত্রী রোহিঙ্গা ইস্যুতে চীন বাংলাদেশের পক্ষে: মোমেন আজ গাজীপুর যাবেন প্রধানমন্ত্রী পরিবেশ দূষণ: ৪ প্রতিষ্ঠানকে কোটি টাকা জরিমানা স্বর্ণজয়ী রোমান সানার মায়ের চিকিৎসার দায়িত্ব নিলেন প্রধানমন্ত্রী আরো দু’টি বোয়িং বিমান কেনার ইঙ্গিত দিলেন প্রধানমন্ত্রী

অতিরিক্ত ফি নেয়া কলেজের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিচ্ছে সরকার

প্রকাশিত: ৫ সেপ্টেম্বর ২০১৯  

২০১৯-২০ শিক্ষাবর্ষে একাদশ শ্রেণিতে শিক্ষার্থী ভর্তির সময় যেসব বেসরকারি কলেজ অতিরিক্ত সেশন ফি আদায় করেছে তাদের একটি তালিকা পেয়েছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়। এবার এসব কলেজের বিরুদ্ধে অপরাধের গুরুত্ব বিবেচনা করে ব্যবস্থা নেয়া হবে। 

মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদফতরের (মাউশি) একজন কর্মকর্তা বলেন, যেসব কলেজ এবার শিক্ষার্থী ভর্তির সময় অতিরিক্ত ফি আদায় করেছে আমরা তাদের একটি তালিকা করে মন্ত্রণালয়ে পাঠিয়েছি। শিক্ষার্থীদের থেকে বেশি ফি আদায় করা গুরুতর অপরাধ। অনেক প্রতিষ্ঠান অতিরিক্ত ফি আদায় করতে চাপ প্রয়োগ করেছে বলেও অভিযোগে উল্লেখ রয়েছে। এসব প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের কাছে সুপারিশ পাঠানো হয়েছে।

এর আগে, গত মাসের শেষ সপ্তাহে দেশের অতিরিক্ত ফি আদায় করা বেসরকারি কলেজগুলোর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে মাউশি থেকে একটি আদেশও জারি করা হয়। আদেশটি জারি করেন মাউশির সহকারী পরিচালক ফারহানা আক্তার।

সেখানে বলা হয়, দেশের বিভিন্ন স্থানে এমপিওভুক্ত প্রতিষ্ঠানের পাশাপাশি ব্যাঙের ছাতার মতো গজিয়ে ওঠা প্রাইভেট প্রতিষ্ঠানগুলো সীমা অতিক্রম করেছে। এসব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে অতিরিক্ত সেশন ফি ছাড়াও চার-পাঁচগুণ বেশি টাকায় বই, খাতাসহ শিক্ষা উপকরণ কিনতে বাধ্য করা হচ্ছে। অতিরিক্ত ফি আদায় করা এসব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে বলেও জানানো হয়। 

এ বিষয়ে ফারহান আক্তার বলেন, শিক্ষাকে কোনোভাবেই পণ্যায়ন করা যাবে না। শিক্ষা গ্রহণে বা দানে যতটুকু খরচ প্রয়োজন এর বাইরে কোন ব্যবসা করা যাবে না। কিন্তু অনেক কলেজ আছে যারা শিক্ষার্থীদের নিয়ে ব্যবসা খুলে বসেছে। এ কারণে এসব কলেজের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া প্রয়োজন। এ ব্যাপারে পরে জানানো হবে। 

এদিকে মাউশির করা তালিকায় কতগুলো কলেজকে অভিযুক্ত করা হয়েছে সে ব্যাপারে বিস্তারিত কিছু জানা যায়নি। এসব প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে কী ধরনের ব্যবস্থা নেয়া হবে সে ব্যাপারেও নিশ্চিত করে বলতে পারেনি কেউ। 

প্রসঙ্গত, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের নামে ডাকাতি এবং লুটপাট বন্ধ করতে গত ২ জুলাই অতিরিক্ত সেশন ফি নেয়া কলেজগুলোকে বাড়তি টাকা অভিভাবকদের কাছে ফিরিয়ে দেয়ার আদেশ দেন হাইকোর্ট। এই নির্দেশের পরই দেশের বেসরকারি কলেজে অতিরিক্ত সেশন ফি আদায়ের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে তালিকা তৈরি করে শিক্ষা মন্ত্রণালয়।

এই বিভাগের আরো খবর